টাইমলাইনভারতসাফল্যের কাহিনি

দুর্নীতির প্রতিবাদ করে খেয়েছিলেন সাতটি গুলি, দৃষ্টিশক্তি কমজোর হলেও ভাঙেনি মনোবল! আজ তিনি IAS

বাংলাহান্ট ডেস্ক : দুর্নীতির প্রতিবাদ করার শাস্তি পেতে হয়েছিল তাঁকে। দুষ্কৃতীরা সাতটি গুলি চালিয়েছিল তাঁর উপরে। এক চোখে দৃষ্টিশক্তি হারিয়েছিলেন। শোনার ক্ষমতাও কমে গিয়েছিল। এত প্রতিকূলতাতেও না দমে ইউপিএসসি পরীক্ষায় বসেছিলেন তিনি। ৬৩৮ র‍্যাংক করে পাশ করেছেন এই পরীক্ষা। রিঙ্কু সিং রাহি নামে এই অফিসার উত্তরপ্রদেশ সিভিল সার্ভিস পরীক্ষায় পাশ করে সরকারি দপ্তরে এখন কর্মরত।

ডরি নগরের বাসিন্দা রিঙ্কুর বাবা একটি আটার মিল চালান। রিঙ্কুর বাবা শিবদন সিং জানান, পরিবারের আর্থিক অবস্থা ভালো ছিল না। তিনি ইংরেজি মাধ্যমের স্কুলে শিশুদের পড়াতে পারেননি। যার কারণে রিঙ্কু সরকারি স্কুল থেকেই পড়াশোনা করেন। রিঙ্কু প্রাথমিক শিক্ষা লাভ করেন সরকারি স্কুল থেকে।

পরে সরকারি ইন্টার কলেজ থেকেই ইন্টার পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হন তিনি। ভালো নম্বর পেয়ে তিনি বৃত্তি পেয়েছিলেন এবং তারপরে তিনি টাটা ইনস্টিটিউট থেকে বিটেক করেছিলেন। এরপর ২০০৮ সালে পিসিএসে নির্বাচিত হয়েছিলেন রিঙ্কু।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, রিংকু ২০০৮ সালে পিসিএস অফিসার হন। তিনি মুজাফফরনগরে পোস্টিং পেয়েছিলেন। সেখানে একজন সমাজকল্যাণ কর্মকর্তা হিসেবে কাজে নিযুক্ত হন রিঙ্কু। ২০০৯ সালে তিনি তাঁর বিভাগের ৮৩ কোটি টাকার কেলেঙ্কারি প্রকাশ করেছিলেন। কেলেঙ্কারি প্রকাশ্যে আসার পর বিভাগের লোকজনই তাঁর শত্রুতে পরিণত হয়েছিল। একদিন সকালে খেলার সময় তাঁকে হত্যার উদ্দেশ্যে গুলি করা হয়েছিল। তাঁকে পরপর সাতটি গুলি করা হয়েছিল।

Related Articles