টাইমলাইনবিনোদন

দলে টানার চেষ্টা? রাজ‍্য পুলিসের মাদক বিরোধী প্রচারে রুদ্রনীলের সংলাপ-ছবি! বিষ্ফোরক প্রতিক্রিয়া অভিনেতার

বাংলাহান্ট ডেস্ক: ‘ধরতে পারবেন না’! ‘ভিঞ্চিদা’ ছবিতে অভিনেতা রুদ্রনীল ঘোষের (Rudranil Ghosh) এই সংলাপ ব‍্যাপক জনপ্রিয়তা পেয়েছিল সোশ‍্যাল মিডিয়ায়। প্রচুর মিম তো বানানো হয়েছেই, এবার রাজ‍্য পুলিসের (West Bengal Police) প্রচারেও ব‍্যবহার করা হল এই সংলাপ। সঙ্গে রুদ্রনীলের ছবি। কাণ্ড দেখে অবাক বিজেপি নেতা।

পশ্চিমবঙ্গ পুলিসের মাদক নিয়ে সচেতনতা মূলক প্রচারে ব‍্যবহার করা হয়েছে রুদ্রনীলের ছবি। ছবির উপরে লেখা, ‘বিভিন্ন জায়গায় মাদকচক্রের খপ্পরে পড়ে কখন যে আপনি নিজেই মাদকাসক্ত হয়ে পড়বেন: ধরতে পারবেন না!’ সঙ্গে আরো লেখা হয়েছে, ‘সংযত থাকুন এবং সচেতন হোন। আসক্তি থেকে নিজেকে দূরে রাখুন এবং অন‍্যদের দূরে থাকতে সাহায‍্য করুন।’

ছবি- রুদ্রনীল ঘোষ ফেসবুক

রুদ্রনীলের ছবি ব‍্যবহার করা নিয়ে বেশ গুঞ্জন শুরু হয়েছে বিভিন্ন জায়গায়। প্রতিক্রিয়া দিয়েছেন অভিনেতা নিজেও। তিনি লিখেছেন, ‘বিস্মিত হয়েছি, মজাও পেয়েছি। পশ্চিমবঙ্গ পুলিস তাদের মাদক বিরোধী সচেতনামূলক বিজ্ঞাপনে আমার ছবি ব্যবহার করেছেন দেখে। ( আমার পার্মিশান কেউ নেন নি)। প্রথমতঃ  এই ছবিটি সৃজিত মুখার্জী পরিচালিত বহুল প্রশংসিত  #ভিঞ্চিদা সিনেমার স্টিল ছবি। আমার মুখের জনপ্রিয় সংলাপ ” ধরতে পারবেন না” কে তারা নিয়েছেন। এতে মানুষকে আকর্ষণ করতে চেয়েছেন।’

এরপরেই তাঁর তীব্র কটাক্ষ, ‘কিন্তু, এটা তো হবার কথা না। রাজ্য সরকারের বিজ্ঞাপনে, পুরষ্কার বা সম্মান পাওয়ার লিস্টে ফিলিম ফেস্টিভ্যালের আমন্ত্রণ লিস্টে, মঞ্চে তো সাধারণতঃ শাসকদলের হয়ে প্রচার করা শিল্পী বুদ্ধিজীবীরাই স্থান পান!!! তাহলে আমি কেন? রোজই তো এ রাজ্যে যা যা অন্যায় চুরি জোচ্চুরি ঘটছে তা নিয়ে কোন না মিডিয়ায় কথা বলি!!! তাহলে এটা কেন ঘটলো??’


প্রশ্নের উত্তর নিজেই দিয়েছেন রুদ্রনীল‌। তাঁর সকৌতুক উত্তর, সম্ভবত রাজ‍্য পুলিসের ব‍্যাক অফিসের কোনো কর্মী বা মিডিয়া এজেন্সি ভুল করে এই কাণ্ডটা ঘটিয়েছেন। তার চাকরির নিশ্চয়তা নিয়েও প্রশ্ন তুলেছেন রুদ্রনীল। কারণ তাঁর কথায়, ‘রাজ্যের  বিরোধী দলের মানুষজনকে পুলিশ দিয়ে হেনস্থা বা বিরক্ত করার নিদানই তো দেওয়া আছে তা সবাই জানে।’

এখানেই না থেমে তিনি আরো লিখেছেন, ‘যদি কেউ ভাবেন আমায় এসব করে শাসক দলে টানার রাস্তা তৈরী করব। তাঁদের উদ্দেশ্যে আমার একটাই সংলাপ, ” পেসেন্ট আইসিসিইউতে চলে গেলে আর কমলালেবু কিনে দিয়ে লাভ নেই।”‘

Related Articles

Back to top button