টাইমলাইনবিনোদনরাজনীতি

বিক্ষুব্ধদের বাদ দিয়ে নতুন ভাবে সাজল রাজ‍্য বিজেপি, গুরুত্বপূর্ণ পদ পেলেন রুদ্রনীল

বাংলাহান্ট ডেস্ক: ভোলবদল রাজ‍্য বিজেপির (Bjp)। দিলীপ ঘোষের সময়ে যারা দলের, গুরুত্বপূর্ণ পদে ছিলেন, তাদের প্রায় সকলেরই পদ হাতছাড়া হয়েছে। বদলে এসেছেন নতুন সদ‍স‍্যরা। বিদেশ গুরুত্বপূর্ণ পদ দেওয়া হয়েছে রুদ্রনীল ঘোষকে (Rudranil Ghosh)। সব মিলিয়ে ঢেলে সাজানো হয়েছে বিজেপির নতুন কার্যনির্বাহী কমিটি গুলো‌।

দিলীপ ঘোষ যখন বিজেপির রাজ‍্য সভাপতি ছিলেন তখনকার বিভিন্ন সেলের দায়িত্বপ্রাপকদের বেশিরভাগকে সরিয়ে দেওয়া হমেছে এখন। সরিয়ে দিয়েছেন সুশান্ত মজুমদার এবং অমিতাভ চক্রবর্তী। এমনকি বিজেপির কার্যনির্বাহী কমিটির হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপের সেটিংসও বদলে ফেলা হয়েছে।


তবে সবথেকে বড় চমক, সংষ্কৃতি সেলের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে অভিনেতা রুদ্রনীল ঘোষের হাতে। এতদিন এই সেলের দায়িত্ব ছিল অভিনেতা সুমন বন্দ‍্যোপাধ‍্যায়ের কাছে। রুদ্রনীলের সহ আহ্বায়ক হিসাবে বাছা হয়েছে অভিনেত্রী কাঞ্চনা মৈত্রকে।

প্রসঙ্গত, মাঝে রুদ্রনীল দাবি করেছিলেন, গত দেড় বছর ধরে কাজ নেই তাঁর কাছে। গত বছর বিধানসভা নির্বাচনের আগে গেরুয়া শিবিরে যোগ দিয়েছিলেন রুদ্রনীল। তাঁর অভিযোগ ছিল, তারপর থেকেই নাকি আর কোনো কাজ পাচ্ছেন না তিনি। প্রায় ১৬ মাস ধরে একটাও কাজ নেই রুদ্রনীলের হাতে। অথচ বিরোধী শিবিরে যোগদানের আগে পর্যন্ত বাংলার অন‍্যতম প্রতিভাবান ও জনপ্রিয় অভিনেতা বলে পরিচিত ছিলেন তিনি। হঠাৎ করেই দৃশ‍্যটা যেন বদলে গিয়েছে।

রুদ্রনীল দাবি করেছিলেন, তাঁর কয়েকজন পরিচালক প্রযোজক বন্ধু রাজ‍্যের শাসক দলের ঘনিষ্ঠ। তাঁরা নাকি স্পষ্ট বলেছেন, বিজেপি ছেড়ে দিতে। নয়তো রুদ্রনীলকে কাজ দিতে অসুবিধা হচ্ছে। অভিনেতার বক্তব‍্য, বিরোধী রাজনীতি করার অপরাধে রোজগারের রাস্তাটাই বন্ধ করে দেওয়া হচ্ছে। তখন তো মানুষকে ভাবতেই হয়।

Related Articles

Back to top button