টাইমলাইনবিনোদন

পোশাক-অন্তর্বাস খুলতে বলেছিলেন প্রয়াত জিয়াকে, ফের যৌন হেনস্থার বিষ্ফোরক অভিযোগ সাজিদ খানের বিরুদ্ধে

বাংলাহান্ট ডেস্ক: আবারো যৌন হেনস্থার (sexual harassment) অভিযোগ উঠল বলিউড (bollywood) পরিচালক সাজিদ খানের (sajid khan) বিরুদ্ধে। এর আগেও পরিচালকের বিরুদ্ধে ‘মিটু’র অভিযোগ নিয়ে উত্তাল হয়েছে বলিউড। ফের একই অভিযোগের আঙুল উঠল সাজিদের দিকে। আর এই বিষ্ফোরক অভিযোগ করলেন প্রয়াত জিয়া খানের (jiah khan) বোন করিশ্মা খান (karishma khan)।

হাসি মশকরার নামে মহিলাদের যৌন হেনস্থা করেন সাজিদ খান, এমনটাই অভিযোগ তুলেছেন করিশ্মা। একটি ভিডিও এই সময় সোশ‍্যাল মিডিয়ায় তুমুল ভাইরাল হয়েছে। সংবাদ সংস্থা বিবিসির একটি ডকুমেন্টরির অন্তর্ভুক্ত এই ভিডিও। ভিডিওতে সাজিদ খানের বাড়িতে নিজের অভিজ্ঞতার কথা বলতে শোনা যায় করিশ্মাকে।


তিনি জানান, এই ঘটনা যখন ঘটেছিল তখন তাঁর বয়স মাত্র ১৬। দিদি জিয়া খানের সঙ্গে সাজিদের বাড়িতে গিয়েছিলেন তিনি। সেদিন একটি সরু স্ট‍্র‍্যাপের পোশাক পরেছিলেন করিশ্মা। অনেকক্ষণ ধরে তাঁকে লক্ষ‍্য করছিলেন সাজিদ। একটা সময় তিনি জিয়াকে বলে ওঠেন, করিশ্মা তাঁর সঙ্গে সঙ্গম করতে চান।

করিশ্মা জানান এতে জিয়া চমকে ওঠেন ও তৎক্ষণাৎ পরিচালককে জিজ্ঞাসা করেন এসব তিনি কি বলছেন। উত্তরে সাজিদ বলেন, করিশ্মার বসে থাকার ধরন দেখে তাঁর এমনটা মনে হয়েছে। তখন জিয়া বলেন, করিশ্মা ছোট ও এসব কিছুই তিনি চান না।

এখানেই শেষ নয়। করিশ্মা আরো জানান, সাজিদের বাড়িতে ছবির চিত্রনাট‍্য পরতে গিয়েছিলেন জিয়া। তখন পরিচালক তাঁকে তাঁর পোশাক ও অন্তর্বাস খুলতে বলেন। সেদিন বাড়ি ফিরে জিয়া রীতিমতো ভেঙে পড়েছিলেন বলে জানান করিশ্মা। জিয়া বলেছিলেন, তিনি চুক্তিবদ্ধ। এমন অবস্থায় ছবি না করলে তাঁর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের হবে। আর ছবি করতে হলে তাঁকে যৌন হেনস্থা সহ‍্য করতে হবে।

বিবিসির ডকুমেন্টরির এই ভিডিও শেয়ার করেছেন কঙ্গনা রানাওয়াতও। তিনি লিখেছেন, ‘ওরা জিয়াকে মারল, সুশান্তকে মারল, আমাকে মারার চেষ্টা করল। কিন্তু তাও ওরা স্বাধীনভাবে ঘুরে বেড়াচ্ছে। মাফিয়ার পুরো সমর্থন রয়েছে, আরো শক্তিশালী ও সফল হচ্ছে প্রতি বছর। শিকার বা শিকারির কাছে জগৎটা আদর্শ নয়। কেউ বাঁচাবে না, নিজেই নিজেকে বাঁচাতে হবে।’

উল্লেখ‍্য, এই ভিডিওটি বিবিসির ‘ডেথ ইন বলিউড’ নামে একটি ডকুমেন্টরির অন্তর্ভূক্ত। সেখানেই সাজিদ খানের বিরুদ্ধে এমন বিষ্ফোরক অভিযোগ এনেছেন জিয়ার বোন করিশ্মা। তবে এই ডকুমেন্টরি ভারতে দেখা সম্ভবপর নয়। প্রসঙ্গত, সাজিদ খানের সঙ্গে ‘হাউজফুল ৪’ ছবিতে কাজ করেছিলেন প্রয়াত জিয়া খান। বেশ কয়েকজন নামজাদা তারকা ছিলেন এই ছবিতে।

Back to top button