টাইমলাইনবিনোদন

প্রসাদের বদলে আস্ত রসুন খাইয়ে দিয়েছিলেন! অক্ষয়ের দুষ্টুমির কথা ফাঁস করে দিলেন সারা

বাংলাহান্ট ডেস্ক: বয়স বাড়ে বাড়ুক, তার ছাপ মনে যেন না পড়ে। এই মন্ত্রেই বিশ্বাস করেন অক্ষয় কুমার (akshay kumar)। তিনি হাসিখুশি থাকেন, অন‍্যদেরও হাসিখুশি রাখতে ভালবাসেন। তাই শুটিং সেটে নানান মজার কাণ্ডকারখানাও করেন সহ অভিনেতা অভিনেত্রীদের সঙ্গে। তাঁর শিকার হয়েছেন খোদ সারা আলি খান (sara ali khan)। অক্ষয় তাঁকে মিথ‍্যে বলে প্রসাদের জায়গায় রসুন খাইয়ে দিয়েছিলেন!

‘অতরঙ্গি রে’ ছবিতে একসঙ্গে কাজ করেছিলেন অক্ষয় ও সারা। ছবির মুক্তির আগে ‘কপিল শর্মা শো’তে এসেছিলেন দুজনে। সেখানেই অক্ষয়ের এই ‘প্র‍্যাঙ্কস্টার’ ভূমিকার কথা প্রকাশ‍্যে আনেন সারা। তিনি জানান, সেটে তাঁর সঙ্গেও এমন মজা করেছিলেন অক্ষয়। প্রসাদ বলে অভিনেত্রীকে মিষ্টি খেতে দিয়েছিলেন তিনি। কিন্তু ওই মিষ্টির মধ‍্যে লুকানো ছিল রসুনের কোয়া।


সরল মনে তা বিশ্বাস করে খেয়েও নেন সারা। কিন্তু মুখে দিয়েই ভুল ভাঙে তাঁর। অক্ষয় তাঁকে যখন জিজ্ঞাসা করেন, তাঁর সঙ্গে কী মজা করা হয়েছে, সারা উত্তর দেন, “স‍্যার আপনি আমাকে রসুন খাইয়ে দিলেন!” কপিলের শো তে এসে সারা জানান, অক্ষয় তাঁকে মিষ্টিটা দিয়ে বলেছিলেন যে ওটা ভগবানের প্রসাদ। আর গোটা রসুন খাইয়ে দিয়েছিলেন।

অবশ‍্য সারাও কিছু কম যান না। তিনিও অন‍্যের সঙ্গে মজা করায় দক্ষ। তাঁর দু লাইনের জোকসগুলো বেশ জনপ্রিয় অনুরাগী মহলে। এমনকি শুটিংয়ের মধ‍্যে আঘাত পেয়েও মজা করতে ছাড়েননি তিনি। একবার নিজের ইনস্টা হ‍্যান্ডেলে একটি ভিডিও শেয়ার করেছিলেন অভিনেত্রী।

তাঁর নাকের উপরে লাগানো ছিল একটি ব‍্যান্ডেড। সেটি খুলতেই দেখা যায় তাঁর নাক রক্তাক্ত হয়ে রয়েছে। ভিডিওর ক‍্যাপশনে সারা লিখেছিলেন, ‘সরি আম্মা আব্বা লেগে গিয়েছে। নাক কেটে ফেলেছি আমি’। হিন্দিতে যার অর্থ ‘লজ্জিত করা’। সারা একবার জানিয়েছিলেন, তাঁর এই মজা করার স্বভাব নিজের বাবা মায়ের থেকেই পাওয়া। বিচ্ছেদের আগে সইফ নাকি এমন মজা করেছিলেন যে অমৃতার প্রাণ সংশয় অবধি হতে পারত! কিন্তু সারার বক্তব‍্য, এমন মজা তিনিও একবার অন্তত করতে চান।

Related Articles

Back to top button