টাইমলাইনবিনোদন

সু্স্থ আছেন সব্যসাচী, ভুয়ো খবরের বিরুদ্ধে কড়া বার্তা বন্ধু সৌরভের

বাংলাহান্ট ডেস্ক: মাসের প্রথম দিনটা থেকে নেটপাড়া সচকিত হয়ে ছিল ঐন্দ্রিলা শর্মার (Aindrila Sharma) অসুস্থতার খবরে। ২০ দিনের লড়াইয়ের পর সবাইকে কাঁদিয়ে বিদায় নিয়েছেন অভিনেত্রী। কিন্তু সোশ্যাল মিডিয়া এখনো ঐন্দ্রিলা ময়। তাঁর দিদির শেয়ার করা পোস্ট, বিভিন্ন ফ্যানপেজের শেয়ার করা ছবি, ভিডিওতে ভরা সোশ্যাল মিডিয়ার দেওয়াল। কিন্তু অনেক সময়ে এই ভালবাসাটাই ‘অত্যাচার’ হয়ে দাঁড়াচ্ছে। বিশেষ করে ঐন্দ্রিলার পরিবার এবং সব্যসাচী চৌধুরীর (Sabyasachi Chowdhury) কাছে।

ঐন্দ্রিলার মৃত্যুর পর থেকেই অনেকের কৌতূহল সব্যসাচীকে নিয়ে। তিনি কেমন আছেন, কীভাবে সামলাচ্ছেন নিজেকে এবং অভিনেত্রীর পরিবারকে। সেসব জানতে উৎসুক নেটিজেনরা। এর মধ্যেই গুঞ্জন ছড়িয়ে পড়েছে, ঐন্দ্রিলা চলে যাওয়ার পর সব্যসাচী নাকি গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েছেন। কিন্তু খবরটা সম্পূর্ণ ভুয়ো।


বিষয়টা বাড়াবাড়ির পর্যায়ে যাচ্ছে দেখেই ফের মুখ খুলেছেন অভিনেতা সৌরভ দাস (Saurav Das)। ঐন্দ্রিলা সব্যসাচীর লড়াইটার সাক্ষী তিনি প্রথম থেকেই। হাসপাতালে সৌরভও রাত জেগেছেন সব্যসাচীর সঙ্গে। কাজের জন্য তাঁকে কিছু দিনের জন্য সব্যসাচীর সঙ্গ ছাড়তে হয়েছিল বটে, কিন্তু সৌরভ বুঝিয়ে দিলেন, তিনি এখনো বন্ধুর পাশেই রয়েছেন।

সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি স্পষ্ট অথচ কড়া বার্তা দিয়েছেন সৌরভ। তিনি লিখেছেন, ‘সব্যসাচী সু্স্থ আছে। সঙ্গে আছি আমি এবং থাকবো। যারা ভুয়ো খবর ছড়াচ্ছে তারা অসুস্থ, বিব্রত হবেন না। গালাগাল দিয়ে পোস্টটা নোংরা করছি নানা যাতে শেয়ার করে মানুষজনকে জানাতে পারেন সব্যর ব্যাপারে।’ সেই সঙ্গে সৌরভ স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছেন, কোনো রকম ভুয়ো খবর দেখলেই আইনি পদক্ষেপ নেওয়া হবে। ঐন্দ্রিলার পরিবার এবং সব্যসাচীকেও শান্তিতে থাকতে দেওয়ার আর্জি জানিয়েছেন তিনি।

ঐন্দ্রিলা ব্রেন স্ট্রোকে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার পর থেকেই সব্যসাচীর পাশে ছিলেন সৌরভ। অভিনেত্রীর মৃত্যুর পরে তাঁকে খোলা চিঠি লিখেছিলেন তিনি, সবসময় তাঁর ‘সব্য’র খেয়াল রাখবেন। সেই প্রতিশ্রুতি অক্ষরে অক্ষরে পালন করে চলেছেন সৌরভ।

Related Articles