টাইমলাইনবিনোদন

শুধু বিস্কুট খেয়ে বেঁচে রয়েছে আরিয়ান, চার দিন ধরে একবারও যায়নি বাথরুমে

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ রাজমহলের মতো ঘরে থাকা শাহরুখ খানের (Shah Rukh Khan) ছেলে আরিয়ান খান (Aryan Khan) বর্তমানে মুম্বাইয়ের আর্থার রোড জেলে দিন কাটাচ্ছে। ৮ অক্টোবর দুপুরে তাঁকে সেখানে নিয়ে যাওয়া হয়। জেল বন্দি আরিয়ান খানের পরিস্থিতি নিয়ে এখন চাঞ্চল্যকর তথ্য সামনে আসছে। জেল সূত্র অনুযায়ী, আরিয়ান জেলে ঢোকার পর থেকে ঠিকমতো খাবার কায়নি। বিগত ৪ দিন ধরে সে শুধু বিস্কুট খেয়েই রয়েছে।

জেল প্রশাসন আর কর্মীরা তাঁকে লাগাতার বোঝানোর চেষ্টা করে চলেছে, কিন্তু খিদে পায়নি বলে আরিয়ান কিছুই মুখে নিচ্ছে না। এটাও জানা যাচ্ছে যে, জেলের কর্মী আরিয়ানকে পারলে জি বিস্কুট দিয়েছে, যা খেয়েই বাদশা পুত্র টিকে রয়েছে। আরিয়ানের কাছে আর মাত্র ৩ বোতল জল রয়েছে। জলের এক ডজন বোতল জেলে ঢোকার আগে কিনেছিল আরিয়ান।

জেলের নিয়ম অনুযায়ী, কয়দি নিজের সঙ্গে ২ হাজার ৫০০ টাকা নিয়ে জেলে ঢুকতে পারবে। ওই টাকা জেলের অ্যাকাউন্টে জমা থাকে আর তাঁর বদলে কয়দিকে এক মাসের কুপন দেওয়া হয়। ওই কুপনের ব্যবহার করে কয়দি জেলের ক্যান্টিন থেকে সাবান, তেল, টুথপেস্ট কিনতে পারে। এছাড়াও জেলের ক্যান্টিনে নোনতা বিস্কুট এবং চিপসের প্যাকেট পাওয়া যায়।

জেল সূত্র অনুযায়ী, আরিয়ান তিন থেকে চারদিন ধরে বাথরুম মুখো হচ্ছে না। আর তাঁর এই কাজের জন্য জেলের কর্মী এবং প্রশাসন চিন্তিত রয়েছে। তাঁদের চিন্তা এটাই যে, আরিয়ান দীর্ঘদিন ধরে বাথরুম ব্যবহার না করায় তাঁর শারীরিক অবস্থার অবনতি হতে পারে। জেল কর্মিরা আরিয়ানকে বোঝানোর চেষ্টা করেও বিফল হয়েছে।

এটা জানা গিয়েছে যে, আরিয়ান বিগত ৪ দিন ধরে স্নানও করেনি। যদিও, জেলের নিয়ম অনুযায়ী কয়দিকে রোজ স্নান আর সেভিং করতে হয়। সূত্র অনুযায়ী, আরিয়ানের সেলে বর্তমানে দুজন বয়স্ক একজন বিকোলাঙ্গ সহ তিনজন বিচারাধীন কয়দি রয়েছে। জানা গিয়েছে যে, আরিয়ানের ওই সেলে বহু আগে সঞ্জয় দত্তও থাকত। আরিয়ান বর্তমানে কোয়ারিন্টিনে রয়েছে। তাঁর কোয়ারিন্টিন পিরিওড শেষ হলে তাঁকে সেখান থেকে সরিয়ে নর্মাল ওয়ার্ডে পাঠানো হবে।

Related Articles

Back to top button