টাইমলাইনবিনোদন

‘বেশি কথা বললে না একদম রগড়ে দেব’ প্রসেনজিতের চোখে চোখ রেখে শাসানি সোহিনীর!

বাংলাহান্ট ডেস্ক: টলিউডের অন‍্যতম স্তম্ভস্বরূপ প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ‍্যায় (Prosenjit Chatterjee)। তিনিই ইন্ডাস্ট্রি। টলিউডে যার রাজত্ব তাঁকে শাসানো তো দূর, পালটা উত্তর দিতেও বুক কাঁপে অনেকের। সেখানে সোহিনী সেনগুপ্ত (Sohini Sengupta) কিনা প্রসেনজিতের চোখে চোখ রেখে বললেন, রগড়ে দেব!

পর্দার ‘পুটুপিসি’র এ কেমন রূপ? এমন নেতাসুলভ হাবভাব কেন তাঁর? আর এমন ‘বিতর্কিত’ শাসানিই বা কেন? তাও আবার প্রসেনজিৎকে! একহাট লোকের সামনে আঙুল তুলে সোহিনীর হুঙ্কার, “করে খাচ্ছ করে খাও। বেশি কথা বললে না রগড়ে দেব!”


চমকানোর মতোই ব‍্যাপার বটে। তবে সোহিনীর এমন বিতর্কিত শাসানি শুধুই অভিনয়ের স্বার্থে। প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ‍্যায়ের আগামী ছবি ‘আয় খুকু আয়’তে বিধায়ক পুতুলরানি বাগচীর চরিত্রে অভিনয় করছেন সোহিনী। তাই এমন নেত্রীসুলভ হম্বিতম্বি।

আগামী ১৭ জুন ছবি মুক্তি। তার আগে রবিবার ২২ মে স্টার থিয়েটারে মুক্তি পেল ছবির ট্রেলার। সেই উপলক্ষে হাতিবাগান চত্বরে চাঁদের হাট। উপস্থিত প্রসেনজিৎ, দিতিপ্রিয়া রায়, সোহিনী, রণজয় ভট্টাচার্য, পরিচালক শৌভিক কুণ্ডু, প্রযোজক গোপাল মদনানি।


ট্রেলার লঞ্চ অনুষ্ঠানেই প্রসেনজিতের প্রিয় সংলাপ শোনা গেল সোহিনীর মুখে। সঙ্গে সঙ্গে হাততালি দিয়ে ওঠেন ‘ইন্ডাস্ট্রি’। হ‍্যাঁ, এই সংলাপটাই নাকি খুব প্রিয় প্রসেনজিতের। তাই ট্রেলার লঞ্চে সংলাপটা তো থাকবেই।

সাম্প্রতিক সময়ে বাংলা ছবির প্রচারে বেশ বৈচিত্র দেখা যাচ্ছে। ‘টনিক’, ‘কিশমিশ’ দিয়ে শুরুটা করেছিলেন দেব। সোশ‍্যাল মিডিয়াকে সম্পূর্ণ ভাবে প্রচারের কাজে লাগিয়েছিলেন তিনি‌। সেই পথ অনুসরণ করেছেন প্রসেনজিৎও।

রিল ভিডিও দিয়ে প্রচার শুরু করেছেন তিনি। ট্রেন্ড থেকে বেরিয়ে কোনো ঝাঁ চকচকে শপিং মল বা পাবে নয়, উত্তর কলকাতার ঐতিহ‍্যবাহী স্টার থিয়েটারেই ট্রেলার মুক্তি পেল আয় খুকু আয় এর। শহরকেন্দ্রিক গল্প থেকে বেরিয়ে ছবিতে প্রাধান‍্য দেওয়া হয়েছে গ্রামের নিম্নবিত্ত পরিবারদের।

আয় খুকু আয় ছবির গল্প বাবা মেয়েকে নিয়ে। ছবির নির্মল মণ্ডল ‘সিঙ্গল ফাদার’। মেয়ে ‘বুড়ি’কে একাই বড় করে তুলবেন তিনি, পৌঁছে দেবেন বিয়ের পিঁড়িতে। আগামী ১৭ জুন মুক্তি পেতে চলেছে ‘আয় খুকু আয়’।

Related Articles

Back to top button