টাইমলাইনবিনোদন

মিঠাই রাণীর পাশে ‘কাত্তিক ঠাকুর’! অনুরাগীদের আবদার মেনে আদৃতের সঙ্গে ছবি দিয়েই দিলেন সৌমিতৃষা

বাংলাহান্ট ডেস্ক: সৌমিতৃষার (soumitrisha kundu) উপরে বেজায় ক্ষেপেছিল নেটিজেনরা। এত বলি, তাও উচ্ছেবাবুর সঙ্গে ভিডিও করে না! এদিকে ধ্রুব সরকারের সঙ্গে দেদারে রিল ভিডিও আসছে। অভিমানী নেটনাগরিকরা অভিযোগ তুলেছিলেন, সিদ্ধার্থর সঙ্গে অবিচার করা হচ্ছে।

দর্শকদের ভালবাসাতেই এতদিন ধরে বাংলা সেরা ‘মিঠাই’। আর তাদেরই কিন চটিয়ে দিলেন সৌমিতৃষা! তা কি হয়? শেষমেষ জিত হল দর্শকদেরই। উচ্ছেবাবুর সঙ্গে ছবি শেয়ার করেই দিলেন অভিনেত্রী। তবে এদিন পর্দার চেনা উচ্ছেবাবুর অবতারে নয়, বরং এক্কেবারে ভিন্ন লুকে ধরা দিলেন আদৃত রায় (Adrit roy)।


মিঠাই অবশ‍্য আগেই ঘোষনা করেছিল, মোদক বাড়ির প্রথম দূর্গাপুজোতে সেরা আকর্ষণ হতে চলেছে এ বাড়ির কাত্তিক ঠাকুর। সেই কাত্তিক ঠাকুরের লুকেই ধরা দিল সিড। গোলাপির উপরে হলুদ সুতোর কাজ করা পাঞ্জাবি। সাদা লাল পাড়ের ধুতি পরে সেজেগুজে লেন্স বন্দি হলেন আদৃত। পাশে গোলাপি ও সোনালি শাড়িতে মোদক বাড়ির বৌমা মিঠাই।

ছবি দেখেই হুল্লোড় নেটপাড়ায়। এসেছে, শেষমেষ সিডের সঙ্গে ছবি এসেছে! তোর্সা ওরফে তন্বী লাহা রায় দিলেন হৃদয়ের ইমোজি। একজন লিখলেন, ‘ওমা এই তো! আমাদের পুচু আর কুচু! হায় কারোর নজর না লাগে’। অনেকেই লিখেছেন, এতদিনের অপেক্ষা আজ শেষ হল।

শুধু আদৃত না, মিঠাই পরিবারের আরো অনেক সদস‍্যের সঙ্গে ছবি শেয়ার করেছেন সৌমিতৃষা। ধ্রুবর সঙ্গে দুটি মজার ছবি ভাগ করে নিয়েছেন তিনি। দেখা যাচ্ছে, মিঠাইয়ের শাড়ির আঁচল ধরে হাসিমুখে পোজ দিয়েছে সিরিয়ালের ‘ভিলেন’ সোম। ক‍্যাপশনে গানের লাইন ধার করে লেখা, ‘ছোড় দো আঁচল জমানা কেয়া কহেগা’।

পিসিমণিকে জড়িয়ে ধরে লেন্সবন্দি হতে দেখা গিয়েছে মিঠাইকে। গোটা মিঠাই পরিবারের সঙ্গেও একটি ‘হ‍্যাপি ফ‍্যামিলি ফটো’ শেয়ার করেছেন সৌমিতৃষা। সবার সঙ্গে ছবি উঠল, দাদাই অর্থাৎ সিদ্ধেশ্বর মোদককে বাদ দিলে হয়? দাদাইয়ের সঙ্গেও একটি মিষ্টি ছবি শেয়ার করেছেন সৌমিতৃষা। একসঙ্গে এত ছবি পেয়ে নেটিজেনদের রাগ গলে জল!

Related Articles

Back to top button