টাইমলাইনভারতখেলাআন্তর্জাতিকক্রিকেট

রবি শাস্ত্রীর পর এই দিজ্ঞজ খেলোয়াড় হতে পারেন ভারতীয় দলের কোচ, বুঝিয়ে দিলেন খোদ সৌরভ গাঙ্গুলী

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ শেষ হলেই কোচ পদের মেয়াদ শেষ করবেন রবি শাস্ত্রী। তাই স্বাভাবিকভাবেই প্রশ্ন উঠেছে বিরাটদের নয়া কোচ কে হবেন? কারণ একদিকে যেমন শাস্ত্রী চুক্তির মেয়াদ বাড়াতে আগ্রহী নন তেমনি অন্যদিকে ৬০ বছর পার করবেন তিনি। নিয়ম অনুযায়ী ষাটোর্ধ্ব কোন ব্যক্তি ভারতীয় দলের কোচ হতে পারেন না। সব মিলিয়ে তাই এখন নতুন কোচ নিয়ে জল্পনা তুঙ্গে।

এক্ষেত্রে প্রথম থেকেই উঠে আসছিল রাহুল দ্রাবিড়ের নাম। কিন্তু এনসিএ প্রধান হিসেবে ফের একবার আবেদন করেছেন তিনি। তাই অনেকেই মনে করছিলেন কোচের লড়াই থেকে নিজেই সরে দাঁড়ালেন রাহুল। এবার এই প্রসঙ্গে মুখ খুললেন স্বয়ং বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট সৌরভ গাঙ্গুলী। সংবাদমাধ্যমকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি জানিয়েছেন, কোচ হিসেবে তার এখনও প্রথম পছন্দ রাহুলই। তিনি আরও জানান, “আমি বুঝি যে তিনি স্থায়ীভাবে কাজ করতে আগ্রহী নন। আমরা এখনও তার সাথে কথা বলিনি। কিন্তু আমরা তার সাথে এই বিষয়ে কথা বলব এবং তারপর দেখা যাক কি হয়।”

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য এর আগেই শ্রীলঙ্কা সফরের জন্য অস্থায়ী কোচের দায়িত্ব তুলে দেওয়া হয়েছিল রাহুলের উপর এবং তা সুন্দরভাবেই পালন করেছেন তিনি। তার অধীনে ওয়ানডে সিরিজে শ্রীলঙ্কাকে ২-১ ব্যবধানে পরাজিত করেছিল দল। যদিও টি-টোয়েন্টির ক্ষেত্রে ২-১ ব্যবধানে হার হয় ভারতের। কিন্তু মনে রাখতে হবে সে সময় বেশিরভাগ তারকা খেলোয়াড়ই ছিলেন করোনা আক্রান্ত আর তার ওপর এমনিতেই ভারত তার প্রথম পছন্দের দল পাঠিয়েছিল ইংল্যান্ডে। তাই এই একটি সিরিজের মাধ্যমে রাহুলের কোচিংকে বিশ্লেষণ করা যাবে না।

যদিও বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট আগ্রহী ঠিকই, কিন্তু রাহুল নিজে আগ্রহী হবেন কিনা সেটাই এখন বড় প্রশ্ন। কারণ এর আগেও তিনি জানিয়েছেন, সিনিয়র দলে সঙ্গে স্থায়ীভাবে কোচিং করতে খুব একটা আগ্রহ নেই তার। বরং এনসিএতে নতুন খেলোয়াড়দের তৈরী করতে চান তিনি।

 

Related Articles

Back to top button