টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গবিধানসভা নির্বাচন

সারদা কাণ্ডে কুণাল ঘোষের বড় হাত আছে! তৃণমূল মুখপাত্রর পোল খুললেন শোভন চট্টোপাধ্যায়

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ সাংবাদিক সন্মেলন থেকে কুণাল ঘোষের বিরুদ্ধে তোপ দাগলেন বিজেপির নেতা শোভন চট্টোপাধ্যায়। বিজেপির অফিস থেকে কুণাল ঘোষকে আক্রমণ করে শোভন চট্টোপাধ্যায় বলেন, ‘বাসে কোনও পকেট মার ধরা পড়লে। তাকে জেলে পাঠানোর ব্যবস্থা করা হলে। সে অন্য জনের দিকে আঙুল তুলে চিৎকার করে পকেট মার, পকেট মার করে। কুণাল ঘোষ নিজেই পকেট মার। ওনাকে জেলে যেতে হয়েছিল।”

শোভন বাবু আরও বলেন, ‘যে অভিযুক্ত, যাকে জেলে যেতে হয়েছিল, সে যত কম বলবে তত ভালো। ৭-১০ বছর পার হয়েছে, কেউ আমার বিরুদ্ধে কিছু বলেনি। মিডিয়া, তদন্তকারী সংস্থা কখনো আমার নাম নেয়নি। আমার নাম কখনো ওঠেনি। আজ কুণাল ঘোষ রাজনৈতিক কারণে আমার নামে বলছে। ওনাকে বলতে দিন, আমাদের যেখানে বলার দরকার থাকবে সেখানে বলব।”

তিনি বলেন, ‘ওনাকে বলুন ১০০ মোটর সাইকেল সারদা থেকে কুণাল ঘোষ বন্দোবস্ত করেছিলেন। ২০ টি অ্যাম্বুলেন্স সারদার থেকে নিয়ে কুণাল ঘোষ দিয়েছিলেন। ওই মোটর বাইক আর অ্যাম্বুলেন্স গুলোকে কেন সারদা কর্তা সুদীপ্ত সেনের থেকে নিয়ে চীফ সেক্রেটারি আর মুখ্যমন্ত্রীকে দেওয়া হয়েছিল? আর কেনই বা সেগুলো রাইটার্স বিল্ডিং থেকে উদ্বোধন করা হয়েছিল? আর সেগুলো কোন কাজে লাগানো হয়েছে? এগুলো আগে ওনাকে বলুন পরিস্কার করে বলতে।”

উল্লেখ্য, কিছুদিন আগে চিটফান্ড কাণ্ডে শোভন চট্টোপাধ্যায় জড়িয়ে আছেন বলে দাবি করেছিলেন কুণাল ঘোষ। তিনি দাবি করেছিলেন যে, আইকোরের অনুষ্ঠানে যোগ দিয়েছিলেন শোভন চট্টোপাধ্যায়। তিনি নিজের কথা প্রমাণ করতে কয়েকটি ছবিও সামনে এনেছিলেন। এরপর ওনাকে গ্রেফতারের দাবিও তুলেছিলেন তিনি। আর এবার কুণাল ঘোষের সেই অভিযোগের বিরুদ্ধে মুখ খুললেন শোভন চট্টোপাধ্যায়।

Back to top button