আন্তর্জাতিকটাইমলাইন

খাবার পৌঁছে দিচ্ছেন স্পাইডার ম্যান! কমিক নয় বাস্তবেই ঘটেছে এমন ঘটনা

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ করোনা পরিস্থিতিতে পথে নেমেছেন স্পাইডার ম্যান। না কোনো কল্পকাহিনির প্লট নয়, বাস্তবেই ঘটেছে এমন ঘটনা। টার্কিতে বুরাক সউলু নামের একজন ভদ্রলোক, স্পাইডারম্যানের পোশাকে বাড়ি বাড়ি খাবার পৌঁছে দিচ্ছেন।

স্পাইডার ম্যান সেজে ঐ ব্যক্তি দুধ, সব্জি, মশলা কিনে বয়স্কদের বাড়ির সামনে রেখে আসছেন। করোনা সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ার কারনে এই মুহুর্তে প্রায় গোটা বিশ্বে লকডাউন ঘোষনা করা হয়েছে। এই পরিস্থিতিতে এমন কাজ যে সুপার হিরোর সমতুল্য তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না।

স্পাইডার-ম্যান হল একটি কাল্পনিক কমিক চরিত্র। এর স্রষ্টা হলেন মার্ভেল কমিকসের প্রধান সম্পাদক, লেখক স্ট্যান লি ও কার্টুনিস্ট স্টিভ ডিটকো। স্পাইডারম্যান প্রথম প্রকাশিত হয় ১৯৬২ সালের আগস্ট মাসে এমেইজিং ফ্যান্টাসির ১৫তম সংখ্যায়।

১৯৬০ দশকের যে সময়ে স্পাইডারম্যান প্রকাশিত হয় তখন কমিক বইগুলোতে টিনএজারদের দেখানো হতো প্রধান সুপারহিরোর পার্শ্বচরিত্র হিসেবে। স্পাইডারম্যানের পিটার পার্কার এ গন্ডি থেকে বেরিয়ে এসে নতুন ধারা চালু করে। পিটার পার্কার একজন সাধারণ স্কুল পড়ুয়া টিনএজার যার মধ্যে সমবসয়ীরা নিজেদের ছায়া খুজেঁ পায়। সময়ের সাথে পিটার পার্কার তার লাজুকতা পিছনে ফেলে স্কুল থেকে কলেজে পা দেয়, সেই সাথে যুক্ত হতে থাকে নানান ঝঞ্ঝাটে। কমিকে স্পাইডারম্যানকে প্রায়ই স্পাইডি, ওয়েব-স্লিঙ্গার, ওয়াল-ক্রলার বা ওয়েব-হেড নামেও ডাকা হয়।

স্পাইডারম্যান হল পৃথিবী সবচেয়ে জনপ্রিয় ও সফল সুপারহিরোর একটি।মারভেল কমিকসের ফ্ল্যাগশিপ চরিত্র এবং কোম্পানির মাস্কট হিসেবে তাকে বিভিন্ন মাধ্যমে হাজির করা হয়েছে; যেমন, এনিমেটেড বা মোশন টিভি সিরিয়াল, সংবাদপত্র এবং একটি জনপ্রিয় মুভি সিরিজ যার প্রথম তিন পর্বে অভিনয় করেছেন অভিনেতা টোবি ম্যাগুয়েরে।

 

Back to top button