fbpx
টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গরাজনীতি

বাংলাকে ভারত থেকে ভাগ করতে পারলেই দিদির প্রধানমন্ত্রী হওয়ার স্বপ্ন পূরণ হবে: শুভ্রাংশু রায়, বীজপুরের বিধায়ক

বাংলা হান্ট ডেস্ক : নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন তাঁর জীবদ্দশায় বাংলায় চালু করা যাবে না। গত সপ্তাহের মহামিছিল থেকে এমনটাই হুঁশিয়ারি দিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্য়োপাধ্য়ায়। তবে মুখ্যমন্ত্রীর বিরোধিতা নিয়ে কিন্তু কম কটাক্ষ ও আক্রমন করেনি বিরোধিরা। বিজেপির তরফ থেকে বার বার এনআরসি ও নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন রাজ্যে না প্রণয়নের করার জন্য রাজ্য সরকারের ভ্রান্ত প্রচার নিয়ে সরব হয়েছিল। মিথ্যা রটনা এবং ভুয়ো প্রচার হচ্ছে নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল নিয়ে এমনটাই বলেছিলেন বিজেপি নেতৃত্বরা।

তবে এবার বিজেপির আদর্শে অনুপ্রানিত হয়ে দিদির বিরুদ্ধে বাংলা ভাগের অভিযোগ তুললেন তৃণমূলের একসময়ের হেভিওয়েট নেতা তথা বরপ্তমান বিজেপি বিধায়ক শুভ্রাংশু রায়। এমনিতে মুখ্যমন্ত্রী এনআরসি ও নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের জন্য রাষ্ট্রপুঞ্জের তত্ত্বাবধানে গণভোটের দাবি জানালে সেদিনই মুকুল রায় বাংলায় মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে মমতাকে কতজন চান তা নিয়ে গনভোটের দাবি জানিয়েছিলেন।

তবে এবার মমতার প্রধানমন্ত্রী হওয়ার স্বপ্ন নিয়ে কটাক্ষ করলেন শুভ্রাংশু রায়। বাংলাকে ভারত থেকে ভাগ করতে পারলেই দিদির প্রধানমন্ত্রী হওয়ার স্বপ্ন রূরণ হবে বলে মন্ত্যব্য করেন তিনি। যদিও এখানেই থেমে থাকেননি। তিনিও বাবার পথে হেঁটে বাংলায় গণভোটের দাবি করেন। যাতে মানুষ মমতাকে মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে চান কি না তা স্পষ্ট্য হবে।

অন্যদিকে লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল নিয়ে দিদির প্রধানমন্ত্রী হওয়ার প্রসঙ্গকে গাঁয়ে মানে না আপনি মোড়ল বলেও কটাক্ষ করেন মুকুল রায়। যদিও এই প্রথম বার নয়। একসময়ের দিদি ঘনিষ্ঠ শুভ্রাংশ যখন বাবা দল ছাড়লেও তিনি ছাড়েননি সেই শুভ্রাংশ কয়েকদিন আগেই মমতাকে কটাক্ষ করে “যে ভাষায় উনি কথা বলছেন সেটা ওঁর রুচির পরিচয়।”

Back to top button
Close
Close