টাইমলাইনভারত

ভারত পিঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ করার পর সমস্যায় গোটা বাংলাদেশ! পিঁয়াজ ছাড়াই রান্না করছি আমরাঃ শেখ হাসিনা

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ ভারতে পিঁয়াজের বাড়তি দাম এখন আন্তর্জাতিক ইস্যু হয়ে গেছে। ভারত দ্বারা পিঁয়াজের রপ্তানি বন্ধ করায় সবথেকে বেশি প্রভাবিত হয়েছে বাংলাদেশ। বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নিজের মুখেই সেটা বললেন। বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা চারদিনের সফরে ভারতে এসেছেন। এখানে এসে তিনি একটি অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখার সময় পিঁয়াজের কথা তোলেন। উনি বলেন, ‘আমরা পিঁয়াজ পাচ্ছিনা। আমরা খুব সমস্যায় আছি। আমি জানিনা, আপনারা কেন পিঁয়াজের রপ্তানি বন্ধ করলেন। আমি আমার আমার রাঁধুনিকে বলেছি, পিঁয়াজ ছাড়া রান্না করতে।” প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার এই কথার পর সেখানে উপস্থিত সবাই হাসতে শুরু করে দেন।

প্রসঙ্গত, দেশে পিঁয়াজ কম হওয়ার কারণে আর পিঁয়াজের দাম আকাশ ছোঁয়া হওয়া কারণে ভারত সরকার বিদেশে পিঁয়াজ রপ্তানি ২৯ সেপ্টেম্বর থেকে বন্ধ করে দেয়। ভারত পিঁয়াজ রপ্তানির দিক থেকে সবথেকে বড় দেশ। ভারত থেকে ৬০ এর বেশি দেশে পিঁয়াজ রপ্তানি করা হয়ে। আর ভারত যদি পিঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ করে দেয়, তাহলে রপ্তানি হওয়া প্রতিটি দেশে পিঁয়াজের দাম বেড়ে যায়।

শেখ হাসিনা হেসে বলেন, ‘ আমি জানিনা ভারত সরকার পিঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ হওয়ার আগে আমাকে কেন জানালো না। যদি আমি এই ব্যাপারে আগে জানতাম, তাহলে ভাল হত। এরপরের বার এরকম যদি কিছু করা হয়, তাহলে আমাকে আগে জানিয়ে দিলে খুব ভাল হয়।”

আপানদের জানিয়ে রাখি, বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকায় পিঁয়াজের দাম প্রতি ১০০ কেজি ১০ হাজার টাকার উপর পৌঁছে গেছে। বাংলাদেশ এখন মায়ানমার, তুরস্ক, মিশর এর মতো দেশ গুলো থেকে পিঁয়াজ আমদানির কথা ভাবছে। সঙ্কটের এই সময়ে বাংলাদেশ সরকার এখন সাবসিডি দিয়ে পিঁয়াজ বিক্রি করতে বাধ্য হচ্ছে।

Related Articles