টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গরাজনীতি

‘জেলে চাল পাঠাব, পিষে সিন্নি করবেন’, অনুব্রত গড়ে দাঁড়িয়ে হুঙ্কার সুকান্ত-র! ‘বিড়াল’ সম্বোধন কেষ্টকে

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ সামনেই পঞ্চায়েত নির্বাচন। তার পূর্বে অনুব্রত মণ্ডলের (Anubrata Mondal) ‘গড়’ বোলপুরে (Bolpur) দাঁড়িয়ে কেষ্টকে একের পর এক আক্রমণ শানালেন রাজ্য বিজেপি (Bharatiya Janata Party) সভাপতি সুকান্ত মজুমদার (Sukanta Majumdar)। একের পর এক ইস্যুতে কটাক্ষ করার পাশাপাশি তাঁকে ‘বাঘের মাসি’ অর্থাৎ বিড়াল বলেও খোঁচা মারেন সুকান্ত।

উল্লেখ্য, সম্প্রতি গরু পাচার মামলায় সিবিআইয়ের হাতে গ্রেফতার হন অনুব্রত মণ্ডল। পরবর্তীতে অনুব্রত এবং তাঁর মেয়ে সুকন্যা মণ্ডলের নামে বিপুল পরিমাণ সম্পত্তির হদিশ মেলে। বর্তমানে আদালতের নির্দেশে আসানসোল জেল হেফাজতে রয়েছেন কেষ্ট। একইসঙ্গে সম্প্রতি তাঁকে গ্রেফতার করে ইডি আর এই পরিস্থিতিতে এবার অনুব্রত গড়ে দাঁড়িয়ে তাঁকে আক্রমণ করলেন সুকান্ত মজুমদার।

বলে রাখা ভালো, সামনেই পঞ্চায়েত নির্বাচন আর তার পূর্বে অনুব্রত গড় বীরভূমে শক্তি বৃদ্ধি করতে মরিয়া বিজেপি। সেই সূত্র ধরে এদিন নবান্ন উৎসব উপলক্ষে বোলপুর জেলার মল্লারপুরে পৌঁছে যান সুকান্ত মজুমদার এবং অন্যান্য বিজেপি নেতাকর্মীরা। বোলপুর পৌঁছে এক দলীয় কর্মীর বাড়িতে মধ্যাহ্নভোজ করার পাশাপাশি কলা, গুড়ের মিষ্টি, নতুন ধানের চালের গুঁড়ো এবং নারকেল খান সুকান্তবাবু।

সেখান থেকেই অনুব্রত মণ্ডলকে আক্রমণ করে বিজেপি রাজ্য সভাপতি বলেন, “অনুব্রত মণ্ডলকে জেলে চাল পাঠাবো। উনি ওখানে চাকি পিষছেন। চাল পাঠিয়ে দেবো। পিষে সিন্নি করে নেবেন।” পরবর্তীতে একটি সভায় উপস্থিত হয়ে বিজেপি নেতা আরো বলেন, “অনেকে বলেছিলেন যে জেলে নাকি বাঘ রয়েছে। আমি বলি, উনি বাঘের মাসি। তার কতগুলো ছেলে পুলে হয়, সবাই জানেন। ওনার ছেলেরা বাইরে কাউমাউ করছে। হাতের সামনে পেলেই জেলে পাঠিয়ে দিন।”

all india trinamool congress,Bharatiya Janata Party,anubrata mondal,sukanta majumdar,bolpur,cbi,asansol jail

যদিও সুকান্তবাবুর এহেন মন্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে তৃণমূল নেতা মলয় মুখোপাধ্যায় বলেন, “বাংলায় মানুষের সঙ্গে বিজেপি এই ভাবেই চালবাজি করছে। মানুষ সেটা ধরে নিয়েছে। বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপিও বুঝে গিয়েছে। ওদের এখন কাজ হল, মিথ্যা মামলায় তৃণমূল নেতাদের জেলে পাঠানো।”

Related Articles