টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গবিধানসভা নির্বাচন

গণনায় কারচুপি হয়েছে, পুনর্গণনার দাবি নিয়ে আদালতে যাওয়ার হুঁশিয়ারি শুভেন্দুর

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ গণনায় কারচুপি হয়েছে, নইলে ফল অন্যরকম হত। এবার নির্বাচন কমিশনের বিরুদ্ধে তোপ দাগলেন বিজেপি নেতা শুভেন্দু অধিকারী। পাশাপাশি তিনি আদালতে যাওয়ারও কথা জানিয়ে রাখলেন। বুধবার একদিকে যখন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তৃতীয়বার মুখ্যমন্ত্রী পদে শপথ নিচ্ছিলেন, তখন আরেকদিকে বিজেপির বিধায়ক আর সাংসদরা দলীয় কর্মীদের উপর হওয়া অত্যাচারের প্রতিবাদে ধরনায় বসেছিলেন।

বিজেপির ওই ধরনা মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন বাংলা বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ, শুভেন্দু অধিকারী, রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায় সহ বিশিষ্ট নেতা এবং বিধায়করা। তৃণমূলের অত্যাচারের বিরুদ্ধে ডাক দেওয়া ওই ধরনা মঞ্চ থেকে শুভেন্দু অধিকারী বলেন, ‘কেন্দ্রীয় বাহিনী ভোট শান্তিপূর্ণ করিয়েছে, কিন্তু গণনায় কারচুপি রুখতে ব্যর্থ হয়েছে কমিশন। অনেক গণনা কেন্দ্রেই বিজেপির এজেন্টদের ঢুকতে দেওয়া হয়নি। এই কারণে বিজেপি ১০০-র কম আসন পেয়েছে। আমরা সরকার না গড়তে পারলেও অনেক বেশি আসন পেতাম।”

নির্বাচন কমিশনকে নিশানা করে বিজেপি নেতা শুভেন্দু অধিকারী বলেন, ‘করোনা বিধি মেনে একটি ঘরে সাতটি করে টেবিল রেখে গণনা হচ্ছিল। প্রতিটি তেবিলের মধ্যে ৬ ফুটের দুরত্ব বজায় ছিল। এই কারণে এজেন্টরা সঠিক ফলাফল দেখতে পারেননি। গণনা যদি ঠিক হত, বিজেপি আড়াই কোটির বেশি ভোট পেত।” এছাড়াও পুনর্গণনার দাবি নিয়ে আদালতে যাওয়ার হুঁশিয়ারি দেন শুভেন্দু অধিকারী। তিনি বলেন, সব ইভিএমই আবার গুনতে হবে। যদিও, শুভেন্দু পুনর্গণনার দাবি তুললেও রাজ্যের বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ এই নিয়ে কিছু বলেন নি।

Related Articles

Back to top button