টাইমলাইনখেলাক্রিকেট

“যথেষ্ট হয়েছে, আর নয়” কোহলির প্রতিক্রয়া নিয়ে বড় বয়ান গিলক্রিস্টের

বাংলা হান্ট নিউজ ডেস্ক: ডিআরএস পর্বের পরে বিরাট কোহলি স্টাম্প মাইক বিতর্ক নতুন মাত্রা ছুঁয়েছে। সেই বিতর্কিত সিদ্ধান্ত ডিন এলগারকে একটি লাইফলাইন দিয়েছিল যা নিয়ে চূড়ান্ত অসন্তুষ্ট ছিল ভারতীয় দল। এরপর মাইকেল ভন বলেছেন কোহলিকে তার ক্ষোভের জন্য জরিমানা বা বরখাস্ত করা দরকার, দক্ষিণ আফ্রিকার প্রাক্তন ব্যাটসম্যান ড্যারিল কুলিনানও মনে করেন যে ভারত অধিনায়ক দীর্ঘদিন ধরে এই ধরনের কাজকর্ম করে যাচ্ছেন এবং এখন তার ‘কঠোর শাস্তি’ হওয়া উচিত।

ঘটনাটি নিয়ে সারা বিশ্ব থেকে প্রতিক্রিয়া উঠে আসছে। এবার অস্ট্রেলিয়ার দুই সেরা প্রাক্তন ক্রিকেটার এবং কিংবদন্তি শেন ওয়ার্ন এবং অ্যাডাম গিলক্রিস্ট এই বিষয়ে নিজেদের মতামত দিয়েছেন। অস্ট্রেলিয়ার প্রাক্তন উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যান গিলক্রিস্ট এই পর্বে বড় মন্তব্য করেছেন। তিনি বলেছেন যে নানা কারণে ভারতীয় অধিনায়কের হতাশা বাড়ছিল এবং ঐ ঘটনার পর তার আবেগ চরমে পৌঁছেছিল।

প্রাক্তন অজি উইকেটরক্ষক বলেছেন “আমি কোহলির যে অভিযোগটা নিয়ে আগ্রহী সেটা হল যখন তিনি বলছেন যে সবটা পূর্বপরিকল্পিত বলে মনে হচ্ছে। এটি ধীরে ধীরে গড়ে তোলা হচ্ছিল এবং পরে তা ব্রেকিং পয়েন্টে পৌঁছেছে।” যদিও ভনের মতো কোহলিকে সরাসরি আক্রমণ করা থেকে বিরত ছিলেন গিলক্রিস্ট।

শেন ওয়ার্ন স্বীকার করেছেন যে অশ্বিনের বলটি স্টাম্পে আঘাত করার মতোই ছিল। তিনি বলেছেন ‘এটি মাঝখানে অর্ধেক পথ ভেঙে ফেলার মতো চলছে, যদিও এটি অস্বীকার করার কোনও উপায় আপাতত নেই’। প্রাক্তন লেগ-স্পিনার, বিরাট কোহলি সম্পর্কে বলেছেন যে তিনি একটি ‘আন্তর্জাতিক দলের অধিনায়ক, তিনি এমন না করলেই ভালো। তবে সময়ের সাথে সাথে বেড়ে যাওয়া হতাশার দ্বারা বিভ্রান্ত হয়ে তিনি এমনটা করেছিলেন।’

Related Articles

Back to top button