আন্তর্জাতিকটাইমলাইনভারত

লাগাতার শক্তি বৃদ্ধি করছে ভারত, শত্রুপক্ষের ঘুম ওড়াতে ভারতীয় সেনার হাতে এল নতুন হাতিয়ার

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ মাল্টিমোড হ্যান্ড গ্রেনেড (multimode hand grenade), শত্রুপক্ষের ঘুম ওড়াতে ভারতীয় সেনার (Indian army) হাতে এল নতুন হাতিয়ার। যা নিমেষে শেষ করে দেবে প্রতিপক্ষ শত্রুকে। এই মাল্টিমোড হ্যান্ড গ্রেনেড প্রায় ১০ লক্ষ পরিমাণ পেতে চলেছে ভারতীয় সেনাবাহিনী। এই কারণে নাগপুরের ইকোনমিক এক্সপ্লোসিভ লিমিটেডের সঙ্গে চুক্তি বদ্ধ হয়েছে সুরক্ষা মন্ত্রালয়।

সুরক্ষা মন্ত্রালয় এবং নাগপুরের ইকোনমিক এক্সপ্লোসিভ লিমিটেডের মধ্যেকার এই ১০ লক্ষ মাল্টিমোড হ্যান্ড গ্রেনেডের চুক্তি প্রায় ৪.৯ কোটি টাকার মাধ্যমে সম্পন্ন হয়েছে। প্রয়োজনে শত্রুপক্ষকে আহত করবে, আবার প্রয়োজনে সম্পূর্ণ নাশ করবে এই হাতিয়ার। মাল্টি পারপাসে ব্যবহৃত হয় বলে, একে মাল্টিমোড হ্যান্ড গ্রেনেড বলা হচ্ছে।

এই মাল্টিমোড হ্যান্ড গ্রেনেডে একটি কভার থাকছে, যা শ্ত্রুকে নাশ করতে খোলা হবে। তবে এই কভার না থাকলে, তা শুধুমাত্র শত্রুপক্ষকে আহত করেই ছেড়ে দেবে। শত্রুকে নিঃশেষ করতে পারবে না। কভার বিহীন মাল্টিমোড হ্যান্ড গ্রেনেড দিয়ে শত্রু পক্ষকে ভয় দেখিয়ে তাদের ডেরায় প্রবেশ করতে পারবে ভারতীয় সেনা।

নাগপুরের ইকোনমিক এক্সপ্লোসিভ লিমিটেডের তরফ থেকে প্রস্তুত করা এই হ্যান্ড গ্রেনেড প্রতিরক্ষা মন্ত্রালয় এবং বিকাশ সংগঠন মিলিত ভাবে ডিজাইন করছে। জানা গেছে, এটি এমন এক উতকর্ষ মানের গ্রেনেড, যা শত্রুপক্ষকে ঘায়েল করতে এবং শেষ করতে ব্যবহার করা যাবে।

প্রসঙ্গত, সেনা বাহিনীতে প্রত্যেক রাইফেলধারী সেনা নিজের সঙ্গে দুটি করে গ্রেনেড রাখে। এখনও পর্যন্ত যে ধরনের গ্রেনেড ব্যবহার করা হচ্ছে, তাতে অনেক অসুবিধা দেখা দিচ্ছিল। তাই এই আধুনিক মানের গ্রেনেডকে বিভিন্ন ভাবে ব্যবহার করা যাবে। ভারতের এই প্রস্তুতি দেখে ভয়ে কেঁপে উঠছে শত্রুপক্ষ চীন পাকিস্তান।

Back to top button