টাইমলাইনভারত

প্রেমিকের দ্বারা প্রতারিত হওয়ার বদলা নিল প্রেমিকা, রাস্তায় লাগাল ‘সিদ্ধি ঘৃণা শিব’ পোস্টার

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ ভালোবাসার (love) মরশুম চলছে। ফেব্রুয়ারী মাসে ভ্যালেন্টাইন উইকে সকলের মনের মধ্যেই একটা প্রেম প্রেমভাব জেগে ওঠে। কারো প্রেম সফল হয়, কারোর আবার ভালোবাসার দিন আসার আগেই তা ভেঙ্গে যায়। তারপর শুরু হয় বিরহ। কিন্তু মানুষের এই বিরহের প্রকাশ যে এইভাবেও ঘটতে পারে, তা দেখে তাজ্জব বনে গেল লখনৌবাসীরা।

বিষয়টা হল, এই চলতে থাকা ভ্যালেন্টাইন উইকে এক বিরহের চিত্র ফুটে উঠেছে লখনৌয়ের পার্শ্ববর্তী এলাকা গোমতিনগরে। সেখানকার রাস্তা ঘাট, বাসের পেছনে, মেট্রো, শপিংমলে, এমনকি ব্রিজের নীচে সর্বত্রই একটি ঘৃণাসূচক পোস্টার দেখা যাচ্ছে- ‘সিদ্ধি হেটস শিব’। যা দেখে স্পষ্টই বোঝা যাচ্ছে, ছেলেটি অর্থাৎ শিব, সিদ্ধিকে ধোঁকা দেওয়ায় মেয়েটি এভাবেই তাঁর রাগের বহিঃপ্রকাশ ঘটিয়েছে।

https://twitter.com/CricCrazyNIKS/status/1359749212213108737

ভালোবাসার সপ্তাহে ভালোবাসার মানুষের সঙ্গে সুন্দর মুহূর্ত কাটাতে চায় সকলেই। কিন্তু সেই ভালোবাসার মরশুমের মধ্যেই এরকম ঘৃণার পোস্টার দেখে, আশ্চর্য্য হয়ে গেছে সকলেই। কেন ছেলেটির প্রতি মেয়েটির মনে এত ঘৃণা জন্মেছিল, তার উত্তর এখনও পাওয়া যায়নি। কিন্তু ঠিক কে বা কারা এগুলো করল এবং কেন করল, তা এখনও জানা যায়নি। তবে ধারণা করা হচ্ছে, মেয়েটির মনে ছেলেটির জন্য যে ঘৃণা জন্মেছিল, সেই ঘৃণা এভাবেই বর্ষণ করেছে মেয়েটি।

https://twitter.com/hiriadka2015/status/1359750329487683588

রাস্তায় ছড়িয়ে থাকা ‘সিদ্ধি হেটস শিব’ পোস্টার দেখে কেউ কেউ আবার ছবি তুলে নিয়ে স্যোশাল মিডিয়ায় শেয়ার করেও নিচ্ছেন। যা আবার ব্যাপকহারে ভাইরালও হচ্ছে। ছেলেটি কেন মেয়েটির সঙ্গে এভাবে প্রতারণা করল, এখন তার উত্তর খুঁজছে নেটজনরা।

https://twitter.com/memesberg_/status/1359911997555437569

Back to top button