টাইমলাইনভারতআন্তর্জাতিক

ভারতীয় বংশোদ্ভূতের সবথেকে শক্তিশালী মহিলা, যিনি লক করেছেন ট্রাম্পের ট্যুইটার অ্যাকাউন্ট

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ বিগত কয়েকদিন ধরে উত্তপ্ত হয়ে উঠেছিল ক্যাপটিল। প্রাক্তন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প (donald trump) রাষ্ট্রপতি সত্ত্বা খুইয়েও নিজের গদি ছাড়তে নারাজ ছিলেন। ট্রাম্পকে সমর্থন জানিয়ে তাঁর সদস্যরা ক্যাপটিল ঘিরে ধরে বিক্ষোভ প্রতিবাদে লিপ্ত হয়েছিল। কিন্তু শেষমেশ সেই বিক্ষোভ থামিয়ে হার স্বীকার করে নেন ডোনাল্ড ট্রাম্প।

একদিকে যখন ট্রাম্প বিক্ষোভ প্রদর্শন করছেন, সেইসময় স্যোশাল মিডিয়ায় তাঁর শেয়ার করা বেশ কয়েকটি ভিডিও এবং ছবি নিয়ে আপত্তি জানায় স্যোশাল মিডিয়া কর্তৃপক্ষ। প্রথমেই লক করে দেওয়া হয় ট্রাম্পের ফেসবুক অ্যাকাউন্ট। তারপর ট্যুইটার থেকে ১২ ঘন্টার হুঁশিয়ারি দেওয়ার পরও যখন ট্রাম্প সেইসমস্ত হিংসাত্মক ভিডিও স্যোশাল মিডিয়া থেকে ডিলিট করলেন না, তখন ভবিষ্যতের কথা চিন্তা করে ট্রাম্পের ট্যুইটার অ্যাকাউন্ট সম্পূর্ণ বন্ধ করার সিদ্ধান্ত নিল ট্যুইটার কর্তৃপক্ষ। এমনকি ট্রাম্পের ইনস্টগ্রাম অ্যাকাউন্টও ২৪ ঘন্টার জন্য স্থগিত রাখা হয়েছিল।

vijtt 1610304930 Bangla Hunt Bengali News

জানা গিয়েছে, প্রাক্তন মার্কিন প্রেসিডেন্টের ট্যুইটার অ্যাকাউন্ট সম্পূর্ণ রূপে বন্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন ভারতীয় বংশোদ্ভূত বিজয়া গাদ্দে। বছর ৪৫-এর বিজয়া গাদ্দে (vijaya gadde) পেশায় একজন আইনজীবী এবং তিনি ট্যুইটারের আইনী নীতি, ট্রাস্ট এবং সুরক্ষা বিষয়ক প্রধান। তিনি নিজের ট্যুইটার হ্যান্ডেল থেকে জানিয়েছেন, ভবিষ্যতে আরও হিংসার জন্ম দিতে পারে ট্রাম্পের ট্যুইটার অ্যাকাউন্ট। তাই এটি বন্ধ করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হল।

বিজয়া গাদ্দে কার্নেল বিশ্ববিদ্যালয় এবং নিউইয়র্ক আইন বিশ্ববিদ্যালয় থেকে আইন নিয়ে পড়াশুনা করার পর প্রায় এক দশক ধরে বে এরিয়ার আইন সংস্থাগুলিতে টেক স্টার্টআপসের কাজ করেছেন। এরপর তিনি ২০১১ সালে ট্যুইটারে যোগ দেন। একজন কর্পোরেট অ্যাডভোকেট হিসাবে ট্যুইটারের নীতি এবং সিদ্ধান্ত গ্রহণের দায়িত্বে রয়েছেন তিনি।

Back to top button