টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গআন্তর্জাতিককলকাতা

সকাল সকাল ভূমিকম্পে কেঁপে উঠল কলকাতাবাসী, জোড়ালো ভূমিকম্প ভারত মায়ানমার বর্ডারে

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ ভূমিকম্পে (earthquake) কেঁপে উঠল শীতের সকালের ঘুমন্ত কলকাতা (kolkata)। ভারতীয় সময় ভোর ৫ টা বেজে ১৮ মিনিট নাগাদ মাত্র ৩ সেকেন্ডের জন্য অনুভূত হয় এই কম্পন। মূলত উত্তরবঙ্গ এবং দক্ষিণবঙ্গের কিছু অংশে এই কম্পন অনুভূত হয়। কম্পন অনুভব করে কলকাতাবাসীও।

ন্যাশানাল সিসমোলজি সেন্টার সূত্রে খবর, ভারত মায়নমার সীমান্ত ছিল এই ভূকম্পনের উৎস স্থল। রিখটার স্কেলে যার মাত্রা ছিল ৬.৩। কম্পন অনুভব করেন বাংলাদেশের চট্টগ্রামের মানুষজনও। প্রথমে ৩ সেকেন্ড স্থায়ী হওয়ার পর আবার, ভোর ৫ টা বেজে ৫৩ মিনিট নাগাদ আফটার শক হয় বলে জানা গিয়েছে।

আরও জানা গিয়েছে, ভারত মায়নমার সীমান্তে ভূপৃষ্ঠ থেকে ১২ কিলোমিটার গভীরে ছিল এই ভূমিকম্পের উৎসস্থল। বাংলার পাশাপাশি বেশ ভালোরকমের কম্পন অনুভূত হয় মণিপুর, মিজোরাম, অসম, ত্রিপুরাতেও। উত্তরবঙ্গের কোচবিহার, জলপাইগুড়ির বেশ কিছু জায়গায় কম্পন অনুভব করেন ভোরবেলা জেগে থাকা মানুষজন। তবে বিশেষ কোন ক্ষয় ক্ষতির খবর এখনও পাওয়া যায়নি।

জানিয়ে রাখি, ভৌগোলিকদের ভাষায় কতগুলি সারফেস বা প্লেটে বিভক্ত রয়েছে ভূপৃষ্ঠ। ইন্দো-অস্ট্রেলিয়ান প্লেট হচ্ছে তার মধ্যে সবথেকে বড়। ওই প্লেটের উত্তর পূর্ব অংশের কিছুটা অবস্থিত মায়ানমার সাগরের নিচে এবং বেশিরভাগটা পার্বত্য বা আধা সমতলে রয়েছে।

এরই মধ্যে আবার গত ১১ ই নভেম্বর থেকে অল্প অল্প করে স্থানচ্যুত হয়ে যাচ্ছে আফ্রিকান প্লেটটি। যার প্রভাব পড়ছে ইন্দো-অস্ট্রেলিয়া প্লেটেও। সেটিও স্থানচ্যুত হচ্ছে। সেই কারণেই এই কম্পন অনুভূত হয়েছে।

Related Articles

Back to top button