টাইমলাইনভারত

সোশ্যাল মিডিয়ায় ছেয়ে গেল নেপালের রাজকুমারী ও ওনার মেয়ের টিকটক ভিডিও

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ পুরো বিশ্ব জুড়ে চীনের সামগ্রিক জিনিস বয়কটের দাবি তুললেও চীনের অ্যাপ্লিকেশন টিক টক (TIK-TOK) এখনও যেন বিশ্বজুড়ে ছেয়ে আছে। এখন নেপাল থেকে একটা টিক টক ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। ভিডিওটির হোর্ড নেপালের প্রাক্তন রাজপরিবারের। নেপালের প্রাক্তন রাজকন্যা হিমানি শাহ এবং তার দুই কন্যার নেপালি গানে নেচে নেমে একটি টিক-টক ভিডিও করলেন। যা সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। আর তাতে লাইকিং সংখ্যা কম হয়নি।

জানা গিয়েছে, হিমানি প্রথমবার টিক-টক-এ হাজির হয়েছেন। তাঁর মেয়ে পূর্ণিকা সম্প্রতি মাই রিপাবলিকা নামে তাঁর টিক-টক অ্যাকাউন্ট তৈরি করেছেন। হিমানি হলেন নেপালি সিংহাসনের তত্কালীন প্রাক্তন ক্রাউন প্রিন্স পারসের স্ত্রী। ভারতবর্ষে জন্মগ্রহণকারী হিমানি ভিডিওতে, তিনি তাঁর মেয়ে পূর্ণিকা এবং কৃতিকার সাথে নেপালি গান ‘গুরুস কো ফেড মুনি’ তে নাচতে দেখা গিয়েছে। করোনার ভাইরাসজনিত মহামারী নিয়ন্ত্রণে বিশ্ব ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞার কারণে হিমানি বর্তমানে থাইল্যান্ডে আটকে আছেন। তিনি তার মেয়েদের সাথে দেখা করতে গিয়েছিলেন, যারা সেখানে উচ্চশিক্ষার কারনে বাইরে আছেন।

কালো পোশাকে ৪৩ বছর বয়সী হিমানি তার মেয়েদের সাথে ধাপে ধাপে নাচতে দেখা গেছে। এই ভিডিওটি সোমবার টিক টক অ্যাকাউন্টে পূর্ণিকা আপলোড করেছিলেন এবং এখন তা নেপালিদের মধ্যে ভাইরাল হয়েছে। পূর্ণিকা ভিডিওটি দিয়ে লিখেছেন, ‘আমরা এটি আমাদের মায়ের কাছ থেকে পেয়েছি। আমরা সত্যই বলছি যে আমাদের মা খুব ভালো নাচেন।

মঙ্গলবার সকালে, ১৭ হাজার লোক পূর্ণিকার এই ভিডিওটিতে লাইক দিয়েছেন।প্রায় এক হাজার লোক কমেন্টও করেছেন। প্রায় ১৮০০ জন ব্যক্তি ভিডিওটি ভাগ করেছেন। নেপালে উপস্থিত প্রাক্তন ক্রাউন প্রিন্স পারস শাহ ভিডিওটি শেয়ার করার সময় লিখেছেন যে, এটা ‘আমার পরিবার’। আমার সুখী পরিবার।

Back to top button