টাইমলাইনভারত

আগামীকাল ভাইফোঁটা, তাঁর আগে জেনে নিন এই অনুষ্ঠানের নিয়ম কানুন

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ কালী পুজোর ২ দিন পর ভাইয়ের শুভকামনায় পালিত হয় ভাইফোঁটা (Bhai Dooj) উৎসব। এই সময়কে সাধারণ ‘যম দ্বিতীয়া’ বা ‘ভ্রাতৃ দ্বিতীয়াও বলা হয়। ভাই বোনের পবিত্র ভালোবাসার প্রতীক হল ভাইফোঁটা। যার জন্য প্রতিবছর হাজার হাজার ভাই বোন যেন তৃষ্ণার্থ চাতকের মত অপেক্ষায় থাকে।

আগামিকালই ভ্রাতৃ দ্বিতীয়া। প্রতিবছরের মত এবারেও আসবে ভাইফোঁটা উৎসবের শুভ তিথি। তবে এবারে করোনা আবহের মধ্যে কিছু বিধি নিষেধ মেনে পালিত হবে ভাইকে ফোঁটা দেওয়ার দিন। চলুন এবার জেনে নেওয়া যাক ভ্রাতৃ দ্বিতীয়ার কিছু রীতিনীতি।

ভাইফোঁটা (Bhai Dooj) হল হিন্দুধর্মের অন্যতম একটি শ্রেষ্ঠ উৎসব। এইদিন বোনেরা তাদের ভাইয়ের কপালে তেল মাখিয়ে তাদের স্নান করার পরামর্শ দেয়। প্রসঙ্গত, যমুনা নদীতে স্নান করা এইদিনে অত্যন্ত শুভ বলে মনে করা হয়। স্নান সেরে ভাই বোন উভয়েই নতুন কাপড় পড়েন। ভাইয়ের দীর্ঘায়ু কামনা করে, বোনেরা এই দিনটিতে উপবাস করে থাকেন। পাশাপাশি ভাইয়েরাও এই দিনটিতে উপবাস করে থাকেন।

এরপর বোন দই মিশ্রিত চন্দনকাঠ জলে ঘষে তৈরি করে একটি মিশ্রণ। বোন এই মিশ্রণটি নিজের কনিষ্ঠা আঙ্গুলের সাহায্যে ভাইয়ের কপালে ঠেকিয়ে একটি মন্ত্র বলে তিনবার। মন্ত্রটি হল-

ভাইয়ের কপালে দিলাম ফোঁটা, যমের দুয়ারে পড়ল কাঁটা।
যমুনা দেয় যমকে ফোঁটা, আমি দিই আমার ভাইকে ফোঁটা॥
যমুনার হাতে ফোঁটা খেয়ে যম হল অমর।
আমার হাতে ফোঁটা খেয়ে আমার ভাই হোক অমর।

 

মন্ত্রটি পড়ার পাশাপাশি বোনেরা ধান, দূর্বা ঘাস ইত্যাদি ভাইয়ের মাথায় ঠেকিয়ে এবং তাঁকে জল- মিষ্টি খাইয়ে আচারটি সম্পূর্ণ করে। এরপর ভাইয়েরা বোনেদের বিভিন্ন উপহার দিয়ে থাকেন।

Back to top button