টাইমলাইনভাইরাল

বয়স মাত্র ১৭, ডাল-ভাত খেয়ে নিজের উপার্জনের সব টাকাই আরব থেকে পাঠান মাকে, ভাইরাল ভিডিও দেখে চোখে জল নেটপাড়ার

বাংলাহান্ট ডেস্ক, ভাইরাল ভিডিও : প্রতিদিন কতই না ভিডিও ভাইরাল (viral video) হয়। কিন্তু সম্প্রতি এমন এক ভিডিও ভাইরাল হয়েছে যা দেখে চোখে জল নেটপাড়ার। মাত্র ১৭ বছর বয়সী প্রবাসী কিশোর নিজের হাড়ভাঙা খাটুনির পুরো টাকাটাই পাঠিয়ে দেন মাকে৷ নিজে খেয়ে থাকেন ডাল, ভাত, আলু সেদ্ধ।

১৭ বছর বয়স দুরন্তপনার। স্কুল কলেজে পড়াশোনা, বন্ধুদের সাথে হুল্লোড় করেই কেটে যায় দিনগুলি। পারিবারিক কারনে যারা অর্থোপার্জন করতে কাজে নামেন, তাদেরও উপার্জিত অর্থের একটা বিরাট অংশই খরচ করেন বিলাসিতায়। কিন্তু ব্যাতিক্রম বাংলাদেশের রাশেদ। পারিবারিক কারনে সংসারের হাল ধরতে হয় অনেককেই। কিন্তু রাশেদ ব্যাতিক্রম।

‘প্রবাসী বাংলাদেশি’ নামের এক ফেসবুক পেজে রাশেদ জানিয়েছেন তিনি উপার্জন করেন বাংলাদেশি মুদ্রায় ৩৬ হাজার টাকার মত। তার মধ্যে কমপক্ষে ২৪ হাজার টাকা পাঠিয়ে দেন মাকে। পয়সা বাঁচাতে করেন না ফোনে রিচার্জও। ওয়াইফাই দিয়েই যাবতীয় যোগাযোগ সারেন।

রাশেদ জানিয়েছেন, সৌদিতে এসে প্রথম প্রথম মাছ মাংস খেলেও এই মুহুর্তে তিনি টাকা বাঁচানোর জন্য সে সব ছেড়েছেন। দিনের পর দিন তিনি ডাল,ভাত, আলু সেদ্ধ খেয়েই কাটান।

তিনি বলেন তার ভাই ছোট তাকে পড়াশোনা করাতে হবে। বোনের বিয়ে দিতে হবে তাই নিজের উপার্জনের প্রায় পুরোটাই পাঠান দেশে। নামমাত্র হাত খরচে বিদেশে কোনো রকমে আহারাদি সারেন। একটি পয়সাও তিনি বাজে খরচ করেন না।

বিদেশে সে সব থেকে বেশি মিস করেন মা কে। মায়ের জন্যই তার এত কিছু করা বলে জানিয়েছেন তিনি। এমনকি ইন্টারভিউতে তিনি বলেন, সেই সময় তার পকেটে একটি টাকাও নেই। দেখুন ভাইরাল ভিডিও

 

 

Back to top button