টাইমলাইনভারতখেলাআন্তর্জাতিকক্রিকেট

জল্পনার অবসান ঘটিয়ে অধিনায়কত্ব ছাড়লেন কোহলি, টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপেই শেষ বার দেখা যাবে ক্যাপ্টেন বিরাটকে

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ কয়েক দিন আগে থেকেই মিডিয়ায় তৈরি হয়েছিল তীব্র জল্পনা। বিসিসিআই অধিকারিকদের সূত্রেই খবর এসেছিল টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের পরেই অধিনায়কত্ব ছাড়তে পারেন বিরাট কোহলি। কারণ তিনি মূলত ফোকাস করতে চান তার ব্যাটিংয়ের উপর। শোনা গিয়েছিল এই নিয়ে বিসিসিআইয়ের সঙ্গে আলোচনাও হয়েছে কোহলির। কিন্তু পরে এই খবর সম্পূর্ণ ভূয়ো বলে উড়িয়ে দেন বিসিসিআই অধ্যক্ষ অরুন ধুমাল। এমনকি জয় শাহও জানিয়ে দেন, কোহলির অধিনায়কত্ব নিয়ে কোন প্রশ্নই নেই। কিন্তু এবার কার্যত নিজেই এই জল্পনার অবসান ঘটালেন বিরাট।

এদিন নিজেই সোশ্যাল মিডিয়া হ্যান্ডেল থেকে টুইট করে তিনি জানিয়ে দেন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের পর আর অধিনায়কত্ব করতে চান না তিনি। যদিও টেস্ট এবং একদিনের ক্রিকেটের অধিনায়কত্ব থেকে আপাতত সরে দাঁড়াচ্ছেন না তিনি। তিনি জানিয়েছেন, বিশ্বকাপের পর টি-টোয়েন্টির অধিনায়কত্ব ভার থেকে মুক্তি নেবেন তিনি।

এদিন তিনি লেখেন, “ভারতের হয়ে খেলার পাশাপাশি জাতীয় দলের অধিনায়কত্ব করতে পেরে আমি সৌভাগ্যবান। আমি নিজের দায়িত্ব পালন করতে সর্বোচ্চ স্তরে চেষ্টা চালিয়েছি। ভারতীয় ক্রিকেট দলের অধিনায়ক হিসেবে আমার যাত্রা পথে যাঁরা আমার পাশে থেকেছেন, তাঁদের সবাইকে আমি ধন্যবাদ জানাতে চাই। আমি তাঁদের সাহায্য ছাড়া এই কাজ করতে পারতাম না – দলের খেলোয়াড়, স্টাফ, নির্বাচনী কমিটি, আমার কোচ এবং সকল ভারতীয় যাঁরা আমাদের জন্য প্রার্থনা করেছেন।”

সাথে সাথেই লাগাতার তিন ফরম্যাটেই অধিনায়কত্ব যে তার উপর চাপ বাড়াচ্ছিল তাও স্বীকার করে নিয়েছেন তিনি। তিনি লেখেন, “ওয়ার্কলোড খুব গুরুত্বপূর্ণ একটা বিষয়। গত ৮-৯ বছর ধরে ক্রিকেটার হিসেবে এবং ৫-৬ বছর ধরে অধিনায়ক হিসেবে আমাকে যে অসহনীয় চাপ নিতে হয়েছে, তাতে ভারতের টেস্ট এবং একদিনের ক্রিকেটের দলকে নেতৃত্ব দেওয়ার আগে আমার কিছুটা সময় দরকার। টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক থাকাকালীন আমি দলের হয়ে নিজের সর্বস্ব দিয়েছি। এ বার ব্যাটসম্যান হিসেবেও নিজের সেরাটা দেব।”

 

Related Articles

Back to top button