টাইমলাইনভারত

বাজি বিক্রেতাকে গ্রেফতার করেছিল পুলিশ, খবর পেতেই পুলিশের বিরুদ্ধে একশন নিলেন যোগী আদিত্যনাথ

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ ছাড়া পেলেন বুলন্দশহরের (bulandshahr) বাজি বিক্রেতা। তাঁর মেয়ের কান্না দেখে বাজি বিক্রেতাকে ছাড়ার নির্দেশ দেন মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ (yogi adityanath)। শুধুমাত্র বাজি বিক্রেতাকে মুক্তি দেওয়াই নয়, তাঁর মেয়ের জন্য মিষ্টিও নিয়ে গেলেন আধিকারিকরা।

ঘটনার বিবরণ
উত্তরপ্রদেশের বুলন্দশহরে খুরজা মুন্ডাখোড়া মোড়ে শুক্রবার এনজিটির আদেশ অমান্য করে খোলা জায়গায় বাজি বিক্রি করছিলেন বেশ কয়েকজন। পুলিশ সেখানে উপস্থিত হয়ে বাজি বিক্রেতাদের ধরে নিয়ে যায় এবং তাদের সমস্ত বাজি বাজেয়াপ্ত করে। এই ঘটনায় পুলিশের সঙ্গে বচসায় জড়ায় বেশ কয়েকজন দোকানদার।

অসহায় বাচ্চা মেয়েটি কান্নায় ভেঙ্গে পড়ে
তারপর যখন সেখান থেকে সকল বাজি বিক্রেতাদের পুলিশ ধরে নিয়ে যাচ্ছিল, তখন তাদের মধ্যেকার এক বাজি বিক্রেতার ছোট মেয়ে কান্নায় ভেঙ্গে পড়ে। বাবাকে না নিয়ে যাওয়ার জন্য অনুরোধ করে পুলিশকর্মীদের। বাবাকে ছেড়ে দেওয়ার জন্য অনুরোধ করে পুলিশ কর্মীদের সামনে গাড়িতে বেশ কয়েকবার মাথা ঠোকে। পুলিশকর্মীরা সেখান থেকে কোনরকমে বাচ্চা মেয়েটিকে সরিয়ে বাজি বিক্রাতদের নিয়ে থানায় চলে আসে।

যোগী আদিত্যনাথের নির্দেশ
এই ঘটনার বিষয়ে মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ (yogi adityanath) জানার পরই এই বিষয়ে এক সিদ্ধান্ত নেন। বিজেপি নেতা শালভ মণি ত্রিপাঠি এক ট্যুইট করে জানান, ‘মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ জানিয়েছেন, এই বিষয়টিকে পুলিশের আরও সংবেদনশীলতার সঙ্গে দেখাঁ উচিত ছিল। সেইসঙ্গে ওই বাজি বিক্রেতাকে সাময়িকভাবে ছেড়ে দেওয়ার নির্দেশ দেন। পাশাপাশি ওই বাচ্চা মেয়েটির জন্য দীপাবলির উপহার এবং মিষ্টি পাঠানোর নির্দেশ দেন পুলিশের উচ্চপদস্থ আধিকারিকদের’।

Back to top button