আবারও বাঁকুড়ায় এক বিজেপি কর্মীকে মারধরের অভিযোগ উঠল শাসক দলের বিরুদ্ধে

ইন্দ্রানী সেন, বাঁকুড়া: আবারও বাঁকুড়ায় এক বিজেপি কর্মীকে মারধরের অভিযোগ উঠল শাসক দলের বিরুদ্ধে। সুশোভন দত্ত নামে এক বিজেপি কর্মীকে তার দোকানের ভীতরে ঢুকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে হাতে কোপ মারার পাশাপাশি তৃণমূলের বিরুদ্ধে দোকান ভাঙ্গচুরের অভিযোগ উঠেছে। ঘটনাটি ঘটেছে শনিবার বাঁকুড়ার পাত্রসায়র থানার বেলুট গ্রামে।আহত ঐ বিজেপি কর্মীকে পাত্রসায়র ব্লক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

 

   

আক্রান্ত সুশোভন দত্তের অভিযোগ,” অনান্য দিনের মতো এদিন সকালে বেলুট বাজারে আমার মোবাইল দোকান খোলার পর বেলুট-রসুলপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের তৃণমূল প্রধান তাপস বাড়ির নেতৃত্বে একটি দুষ্কৃতি দল দোকানে ঢুকে অবাধে ভাঙ্গচুরের পাশাপাশি ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাত করে।” তিনি বিজেপি কর্মী বলে পরিচিত হওয়ায় তৃণমূল তাকে আক্রমণ করেছে বলে সুশোভন দত্তের অভিযোগ করেছেন ।

5b513 img 20190615 wa0014

বিজেপির পাত্রসায়র মণ্ডল সভাপতি তমাল গুলির কথায় “সুশোভন দত্তের মোবাইল দোকানে প্রধান তাপস বাড়ির নেতৃত্বে তৃণমূল আশ্রিত দূষ্কৃতিরা হামলা চালিয়েছে। তাকে মারধোরের পাশাপাশি কম্পিউটার সহ দোকানের অন্যান্য সামগ্রী ভাঙ্গচুর, নগদ টাকা লুঠ করে।” বিজেপি করলে বাড়ি থেকে মা, বাবাকে তুলে এনে খুনের হুমকি দেওয়া হয়েছে বলে অভিযোগ। বিষয়টি পুলিশকে জানানো হয়েছে।

অন্যদিকে তাঁর বিরুদ্ধে ওঠা সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করেছেন তৃণমূল প্রধান তাপস বাড়ি। তিনি বলেন,”এই ঘটনার সঙ্গে তিনি বা তৃণমূলের কেউ যুক্ত নয়। নতুন বিজেপি ও পুরনো বিজেপি দুই পক্ষের পদ পাওয়া নিয়ে ঝামেলা। এইসব অভিযোগ বিজেপির মিথ্যাচার বলেও তিনি দাবী করেন।

সম্পর্কিত খবর