হাজিরা এড়িয়েও রক্ষা হল না! নুহে হিন্দুদের উপর হামলায় গ্রেফতার কংগ্রেস বিধায়ক মামন খান

বাংলা হান্ট ডেস্ক: নুহের হিংসার ঘটনায় গ্রেফতার ফিরোজপুর ঝিরকার কংগ্রেস বিধায়ক মামন খান (Mamon Khan)। পুলিশ‌ জানিয়েছে, হরিয়ানার নুহে (Nuh Violence) সংঘর্ষের ঘটনায় মদত দেওয়ার অভিযোগ রয়েছে এই কংগ্রেস বিধায়কের বিরুদ্ধে। বৃহস্পতিবার গভীর রাতে তাকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

৩১ জুলাই হরিয়ানার মেওয়াতের নুহে হিন্দু (Hindu) ধর্মাবলম্বীদের একটি মিছিলে হামলা চালায় ইসলামিক (Islamic) মৌলবাদীরা। হিন্দুদের লক্ষ করে গুলি, ইট ইত্যাদি ছোড়া হয়। এর জেরে প্রায় ১৫০০ হিন্দু মন্দিরে আটকে পড়ে। এরপরই চারিদিকে ছড়িয়ে পড়ে হিন্দু বিরোধী হিংসা। সেই হিংসায় মৃত্যু হয় ৬ জনের। আর এই ঘটনাতেই মদত দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে এই কংগ্রেস বিধায়কের বিরুদ্ধে।

   

এদিকে এফআইআর দায়ের হওয়ার পর মামন খান পুলিশ গ্রেফতারি এড়াতে আদালতের দ্বারস্থ হন। তবে হরিয়ানা সরকার আদালতে জানায়, পুলিশের কাছে কংগ্রেস বিধায়ক মামন খানের নুহ সংঘর্ষে মদন জোগানোর পক্ষে ফোন রেকর্ডিং রয়েছে, এছাড়া অন্যান্য প্রমাণ রয়েছে। এরপর আদালত মামন খানের আর্জি খারিজ করে দেয়। এরপর নিম্ন আদালতে আবেদন করতে বলা হয় মামন খানকে। এদিকে তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদ করতে চেয়ে দু’বার নোটিস পাঠায় পুলিশ। কিন্তু শারীরিক অসুস্থতার অজুহাত দেখিয়ে তিনি হাজিরা এড়িয়ে যান। এরপর মামন খান হাইকোর্টে এই মামলা সিটের কাছ থেকে অন্যত্র স্থানান্তর করার আবেদন জানান। পাশাপাশি গ্রেফতারি এড়াতে রক্ষাকবচর আবেদন জানিয়েছিলেন তিনি। কিন্তু আদালত বৃহস্পতিবার তাঁর সমস্ত আবেদন খারিজ করে দেয়।

এরপরই বৃহস্পতিবার গভীর রাতে মামন খানকে গ্রেফতার করে পুলিশ। এই নিয়ে স্থানীয় ডিএসপি সতীশ কুমার কংগ্রেস বিধায়কের এই গ্রেফতারির খবর নিশ্চিত করেছেন। এই প্রসঙ্গে হরিয়ানা বিধানসভার কংগ্রেস পরিষদীয় উপনেতা বলেন, ‘পুলিশ আমাদের জানিয়েছে মামন খানকে গ্রেফতার করা হয়েছে।’

Avatar
Monojit

সম্পর্কিত খবর