টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গরাজনীতি

পুজোর আগেই সরানো হবে দিলীপকে, বঙ্গ বিজেপির নতুন সভাপতির দৌড়ে এগিয়ে এই তিন নেতা

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ ২০১৪ সালে দেশের প্রধানমন্ত্রীর আসনে বসেন নরেন্দ্র মোদী। তিনি দেশের মসনদে বসার ঠিক এক বছর পরই রাজ্য বিজেপির (bjp) সভাপতির পদ পেয়েছিলেন দিলীপ ঘোষ (dilip ghosh)। সেই থেকে এখনও সেই আসনেই বহাল রয়েছেন দিলীপ ঘোষ। তবে সম্প্রতি সময়ে তাঁকে নিয়ে দলের মধ্যেই নানা ক্ষোভের জন্ম নিয়েছে। তারউপর তাঁর মেয়াদ কাল প্রায় শেষের পথে। সবমিলিয়ে এবার দিলীপকে সরিয়ে সেই জায়গায় নতুন মুখ বসাতে চাইছে নেতৃত্ব।

নীতি অনুসারে এক ব্যক্তি টানা ৬ বছরের বেশি রাজ্যের দায়িত্ব থাকতে পারেন না। সেই হিসেব করে দেখতে গেলে, ২০২১ সালের নভেম্বরে মেয়াদ শেষ হচ্ছে দিলীপ ঘোষের। সূত্রের খবর, দলের অন্দরেই আবার দিলীপ ঘোষকে নিয়ে ক্ষোভের জন্ম হয়েছে। বারবার তাঁর বিতর্কিত বেফাঁস মন্তব্যের জেরে বাংলার মানুষের মনে বিরূপ প্রভাব পড়ছে বলেও ধারণ করা হচ্ছে। সেই কারণে দলের একাংশের মতে, দিলীপ ঘোষকে এবার তাঁর জায়গা থেকে সরানোর সময় হয়ে গেছে।

দিলীপ ঘোষকে তাঁর জায়গা থেকে সরিয়ে কেন্দ্রের কোন এক পদ দেওয়ারও জল্পনা উঠেছে। তবে দিলীপ ঘোষের পরবর্তীতে বিজেপির রাজ্য সভাপতির স্থানে তিনটে নাম বারবার উঠে আসছে। বোলপুরের বিজেপি প্রার্থী অনির্বাণ গাঙ্গুলি, ইংলিশবাজারের বিজেপি বিধায়ক শ্রীরূপা মিত্র চৌধুরী এবং রায়গঞ্জ লোকসভা কেন্দ্রের সাংসদ দেবশ্রী চৌধুরী। তবে এই তালিকায় কিছুটা এগিয়ে রয়েছেন অনির্বাণ গাঙ্গুলি। মাথা ঠাণ্ডা রেখে কাজ করার পাশাপাশি দলের অন্যতম শিক্ষিত মুখ হিসেবেও পরিচিত তিনি। তবে এই বিষয়ে এখনও অবধি বিজেপির তরফ থেকে কোন মন্তব্য প্রকাশ করা হয়নি।

Related Articles

Back to top button