‘WBCS-এ উর্দু, হিন্দি চাইলে ওয়াইসি-যোগীকে মুখ্যমন্ত্রী করতাম’! মমতার উপর রেগে বোম বাংলা পক্ষ

বাংলা হান্ট ডেস্ক : বছরের শুরুতেই WBCS এবং WBPS পরীক্ষা নিয়ে বড়সড় মন্তব্য করলেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি (Mamata Banerjee)। গতকালকেই তিনি নবান্ন বৈঠকের শেষে জানিয়েছেন, এবার থেকে এই দুই পরীক্ষায় উর্দু এবং সাঁওতালি ভাষা সংযোজিত করা হল। সেই সাথে যোগ করা হয়েছে হিন্দি ভাষাকেও। আর এবার এই বিষয়টা নিয়ে বিরোধীতা করল বাংলাপক্ষ।

   

প্রাথমিকভাবে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের এই পদক্ষেপকে বেশ তাৎপর্যপূর্ণ বলেই মনে করছে রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের একাংশ। যদিও এই ঘোষণা মনঃপূত হয়নি গর্গ চ্যাটার্জির (Garga Chatterjee)। এইদিন বেশ খোলাখুলিভাবে এই সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করেছেন তিনি। তিনি নিজের সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্ট থেকে লিখেছেন, ‘বাংলা WBCS-এ নিজের ভাষা বাধ্যতামূলক চায়।’

সেই সাথে তার প্রশ্ন, ‘WBCS-এ উর্দু চাইলে ওয়েসিকে মুখ্যমন্ত্রী করত। হিন্দি চাইলে যোগীকে মুখ্যমন্ত্রী করত। মুখ্যমন্ত্রী এ কী করলেন?’ তবে কেবল গর্গ চ্যাটার্জিই নয়, দিকে দিকে বাংলার বহু মানুষ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের এই সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করেছেন। সাধারণ মানুষের পর্যবেক্ষণ, সরকারের এই সিদ্ধান্ত বাঙালিকে আরও এক ধাপ পিছিয়ে নিয়ে যাবে। ধীরে ধীরে এভাবেই বাংলা এবং বাঙ্গালির অস্তিত্ব মুছে যাবে।

আরও পড়ুন : ভোটের আগেই লাগু হবে CAA? পুরোদস্তুর তৈরি পোর্টাল! নাগরিকত্ব দেওয়ার পথে ভারত সরকার

screenshot 2024 01 12 12 33 38 59 a23b203fd3aafc6dcb84e438dda678b6

এক সোশ্যাল মিডিয়া ইউজার লিখেছেন, ‘WBCS পরীক্ষায় হিন্দি উর্দু ভাষার সংযুক্তি করণকে বাংলার মানুষ (ভূমিপুত্র) ভালো চোখে দেখছে না।’ সেই সাথে আন্দোলনের পথে হাঁটার কথাও ভাবছে অনেকে। বিশেষ করে ছাত্র ছাত্রীদের একটা বড় অংশ মুখ্যমন্ত্রীর এই সিদ্ধান্তে অক্ষুন্ন। উর্দু এবং হিন্দি যেহেতু বাংলার ভাষা নয় তাই এই পরীক্ষায় দুই ভাষা কেন বাধ্যতামূলক হবে বলে প্রশ্ন তুলেছে আম জনতা।

সম্পর্কিত খবর