টাইমলাইনভারত

কাশ্মীরে পাথরবাজদের উপর প্রহার, শান্তি বিঘ্নিত করলেই পাসপোর্ট, সরকারি চাকরি সব রদ

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের শান্তি বিঘ্নিত করার চেষ্টা করলে, সরকারী সম্পত্তি নষ্ট করলে, দেশ বিরোধী কাজকর্ম করলে, এমনকি সেনাদের আক্রমণ করলে, সমস্ত রকম সরকারী সুযোগ সুবিধা থেকে বঞ্চিত করা হবে- সম্প্রতি এমনই ঘোষণা করলেন কাশ্মীরের (kashmir) লেফটেন্যান্ট গভর্নর মনোজ সিনহা (Manoj Sinha)।

কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা (Article 370) বাতিল এবং রাজ্য থেকে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে পরিণত করার পর এই প্রথম কোন বড় সিদ্ধান্ত নেওয়া হল এই কাশ্মীরের বিষয়ে। ভারত বিরোধীদের দমন করতে, এমনই এক কড়া পদক্ষেপ নিল উপত্যকার প্রশাসন। এই নিয়মের উলঙ্ঘন করলে, সরকারী চাকরি, পাসপোর্ট কোন কিছুই পাবেন না দেশদ্রোহীরা- এমনই ঘোষণা করা হয়।

৩৭০ ধারা বাতিল করে জম্মু ও কাশ্মীরকে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে পরিণত করা হলেও, কাশ্মীর থেকে প্রায়শই সরকার বিরোধী নানা কার্যকলাপ প্রকাশ পেতে থাকে। যার পরিপ্রেক্ষিতে, সরকার বিরোধী মনোভাব দমন করতে এমন এক অভিনব সিদ্ধান্ত নিল কাশ্মীর প্রশাসন।

সূত্রের খবর, রবিবার কাশ্মীর প্রশাসনের তরফ থেকে জারি করা নির্দেশিকায় বলা হয়েছে, নিরাপত্তারক্ষীদের লক্ষ্য করে আক্রমণ করবে, সরকারি সম্পত্তি নষ্ট করবে এবং সর্বোপরি যারাই কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলটির শান্তিবিঘ্নিত করার চেষ্টা করবে, তাঁরা কোন রকম সরকারী চাকরী করতে পারবেন না এবং পাবেনও না’।

আরও বলা হয়, ‘তাঁদের সমস্তরকম সরকারি সুযোগ-সুবিধা থেকে বঞ্চিত করা হবে। পাসপোর্ট তৈরি, সরকারি চাকরি, এমনকি পাসপোর্টে ছাড়পত্র সবক্ষেত্রেই পুলিশ রেকর্ডের পাশাপাশি ডিজিটাল প্রমাণপত্র ভালো করে খতিয়ে দেখা হবে। অর্থাৎ ভারতে থেকে খেয়ে, দেশের বিরোধিতা কিছুতেই মেনে নেওয়া হবে না’।

Related Articles

Back to top button