টাইমলাইনটাকা পয়সাভারত

চলতি বছরে সবথেকে বেশি বেতন বেড়েছে ভারতে, অনেক পিছিয়ে আমেরিকা-চিন! তথ্য প্রকাশ্যে

বাংলা হান্ট ডেস্ক: এবার ফের একটি আন্তর্জাতিক সমীক্ষায় বিশ্বের একাধিক প্রথমসারির দেশকে পেছনে ফেলল ভারত (India)। জানা গিয়েছে, চলতি বছর বিশ্বের মধ্যে সবথেকে বেশি বেতন বৃদ্ধির ঘটনা ঘটেছে আমাদের দেশেই। মূলত, Aon plc-এর সমীক্ষায় এই তথ্য সামনে এসেছে। সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য বিষয় হল, এই পরিসংখ্যানে আমেরিকা, ব্রিটেন, জার্মানি এবং চিনের মত দেশগুলিকেও যথেষ্ট পেছনে ফেলেছে ভারত।

জেনে নিন পরিসংখ্যান: প্রসঙ্গত উল্লেখ্য যে, ভারতের প্রায় ৪০ টিরও বেশি ক্ষেত্রে মোট ১,৩০০ টি সংস্থায় এই সংক্রান্ত সমীক্ষা চালানো হয়। এমতাবস্থায়, সেই সমীক্ষা থেকে প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী, চলতি বছর অর্থাৎ ২০২২ সালে এখনও পর্যন্ত ভারতে বেতন বৃদ্ধি হয়েছে ১০.৬ শতাংশ। এদিকে, এই পরিসংখ্যানে অনেকটাই পিছিয়ে রয়েছে বাকি দেশগুলি। জানা গিয়েছে, জার্মানিতে এই বছর বেতন বৃদ্ধির হার হল মাত্র ৩.৫ শতাংশ। অপরদিকে, ব্রিটেনে বেতন বৃদ্ধি পেয়েছে ৪ শতাংশ। পাশাপাশি, আমেরিকায় ৪.৫ শতাংশ, ব্রাজিলে ৫.৬ শতাংশ এবং চিনে ৬ শতাংশ হারে বেতন বৃদ্ধি হয়েছে। এছাড়াও, জাপানে এই বৃদ্ধির হার হল মাত্র ৩ শতাংশ।

Aon plc-এর সমীক্ষায় আরও জানা গিয়েছে যে, করোনার মত ভয়াবহ মহামারীর আগে ভারতে বেতন বৃদ্ধির হার আটকে ছিল এক অঙ্কেই। এমতাবস্থায়, ২০২০ সালের মার্চ মাস নাগাদ ভারতে আছড়ে পড়েছিল করোনার ঢেউ। যার ফলে মহামারীর প্রকোপে বেতন বৃদ্ধির হার কমে গিয়ে পৌঁছে যায় ৬.১ শতাংশে। যদিও, ২০২১ সালে ফের ঘুরে দাঁড়াতে শুরু করে এই পরিসংখ্যান। ওই বছর বেতন বৃদ্ধির হার ছিল ৯.৩ শতাংশ।

বিভিন্ন ক্ষেত্রে ঘটেছে বেতন বৃদ্ধি: এই প্রসঙ্গে Aon-এর হিউম্যান ক্যাপিটাল সলিউশনের অধিকর্তা জঙ্গবাহাদুর সিং জানিয়েছেন যে, মূলত বেতন বৃদ্ধির ঘটনাটি বাজারের উত্থান-পতনের উপর নির্ভর করে নির্ধারিত হয়। অর্থাৎ, বেতন বৃদ্ধির অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ মানদণ্ড হিসেবে বিবেচিত হয় বাজারের উত্থান-পতনের ঘটনা। এমতাবস্থায়, যে ক্ষেত্রকে সবচেয়ে বেশি উত্থান-পতনের ধাক্কা সামলাতে হয়, সেই ক্ষেত্রের কর্মীদেরই সবথেকে বেশি বেতন বৃদ্ধি পায় বলে জানিয়েছেন তিনি।

Salary Hike,Salary,Money,Indian Rupees,India,National,highest salaryin crease,America,Japan,Britain,China,Aon plc,Report

সমীক্ষা অনুযায়ী জানা গিয়েছে, মোট পাঁচটি ক্ষেত্রে সবথেকে বেশি বেতন বৃদ্ধির অনুমান করা হয়েছে। তবে, সেগুলির মধ্যে চারটিই প্রযুক্তি সংক্রান্ত ক্ষেত্র। উল্লেখ্য যে, এই ক্ষেত্রটিই বিশ্বব্যাপী অর্থনৈতিক অনিশ্চয়তার কারণে সবচেয়ে বেশি উত্থান-পতনের মুখে পড়েছে। এমতাবস্থায়, ই-কমার্স ক্ষেত্রে সর্বাধিক ১২.৮ শতাংশ হারে বেতন বৃদ্ধি হতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে। পরিসংখ্যান অনুযায়ী, তারপরে রয়েছে স্টার্টআপ (যেখানে বেতন বৃদ্ধির হার ১২.৭ শতাংশ), হাইটেক বা তথ্যপ্রযুক্তি এবং তথ্যপ্রযুক্তি সংক্রান্ত পরিষেবা ক্ষেত্র (বেতন বৃদ্ধির হার ১১.৩ শতাংশ) ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান (বেতন বৃদ্ধির হার ১০.৭ শতাংশ)।

Related Articles