টাইমলাইনভারত

জওহর লাল বিশ্ববিদ্যালয়ের নাম পালটে নরেন্দ্র মোদীর নামে করার দাবি উঠলো

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ বিজেপি সাংসদ হন্স রাজ হন্স জম্মু কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা হটানোর জন্য বড় বয়ান দেন। উনি বলেন, প্রার্থনা করি, সবাই যেন শান্তিতে থাকে। বোমা না পড়ে। আমাদের প্রাক্তনেরা ভুল করেছে, আমরা সেটা ভোগ করছি। প্রসঙ্গত, বিজেপি সাংসদ হন্স রাজ হন্স জওহর লাল ইউনিভার্সিটির (JNU )একটি অনুষ্ঠানে অংশ নিয়েছিলেন। উনি সেখানে বলেন, JNU এর নামে পালটে MNU করে দেওয়া হোক। দেশে মোদীজির নামেও কিছু হোক। এর আগে কেন্দ্রীয় আইন মন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদ বলেন, জম্মু কাশ্মীরকে বিশেষ রাজ্যের তকমা দেওয়া ৩৭০ ধারা জঙ্গি আর তাঁদের পৃষ্ঠপোষকদের সুরক্ষা কবচ হিসেবে কাজ করত। এই ধারা তুলে নেওয়ার পর জম্মু কাশ্মীরে উন্নয়ন হবে, তাও দ্রুত গতিতে। নাগপুরে একটি অনুষ্ঠানের উদ্বোধনের সময় কেন্দ্রীয় আইন মন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদ বলেন, ৩৭০ ধারা তুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত শুধু জম্মু কাশ্মীরের জন্য না, গোটা দেশের জন্য লাভজনক।

প্রাক্তন এয়ার ভাইস মার্শাল কপিল কাক, মেজর জেলারেল অশোক মেহতা (অবসরপ্রাপ্ত) সমেত ছয়জন আবেদনকারী জম্মু কাশ্মীর পুনর্গঠন বিল এবং ৩৭০ ধারা তুলে দেওয়া সরকারের সিদ্ধান্তকে সুপ্রিম কোর্টে চ্যালেঞ্জ জানিয়েছেন। এনারা শনিবার সুপ্রিম কোর্টে আবেদন দাখিল করেন।

আরেকটি আবেদনে জম্মু কাশ্মীরের প্রাক্তন আইএএস আধিকারিক হায়দার তৈয়বজি, ২০১০-১১ এ জম্মু কাশ্মীরের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের মুখপাত্রদের সাথে যুক্ত রাধা কুমার, পাঞ্জাব ক্যাডার এর প্রাক্তন আইপিএস আধিকারিক অমিতাভ পাণ্ডে, কেরল ক্যাডারের প্রাক্তন আইপিএস অফিসার গোপাল পিল্লাই এর নাম আছে।

২০১১ সালে গোপাল পিল্লাই কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র সচিব ছিলেন। এরা নিজের আবেদনে দাবি করেন যে, এই সংশোধনে সেই সব সিদ্ধান্তে আঘাত আনা হবে, যেই সিদ্ধান্ত গুলোর জন্য জম্মু কাশ্মীর ভারতের সাথে যুক্ত হয়েছিল। ওনারা বলেন, সংশোধন এর আগে রাজ্যের জনতার মতামত আর অনুমোদন নেওয়া হয়নি, যেটা রাজ্যের স্বার্থে সাংবিধানিক অনিবার্যতা।

Related Articles

Back to top button