টাইমলাইনভারতরাজনীতি

বাড়ি ভেঙ্গে পড়ায় অসহায় হয়ে পড়লেন বিধায়ক, সততা এমনই যে আজ পর্যন্ত বানাতে পারেননি নিজের পাকা বাড়ি

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ বিগত কয়েকদিনের বৃষ্টিতে উত্তরপ্রদেশের (Uttar Pradesh) হাল বেহাল হয়ে গেছে। রাস্তা ঘাট জলমগ্ন হওয়ার পাশাপাশি ভেঙ্গে পড়ছে ঘর বাড়িও। গোরক্ষপুর জেলার কংগ্রেস (Indian National Congress) দলের প্রাক্তন বিধায়ক হরিদ্বার পান্ডের বাড়িও প্রবল বৃষ্টির কারণে বর্তমানে ধসে গিয়েছে।

অত্যন্ত সৎ ছিলেন বিধায়ক
১৯৮০-৮৫ সালে মণিরাম বিধানসভা কেন্দ্র থেকে কংগ্রেস দলের বিধায়ক পদে নিযুক্ত ছিলেন হরিদ্বার পান্ডে। কাজের প্রতি সৎ এবং অত্যন্ত নিষ্ঠাবান ছিলেন তিনি। প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী প্রয়াত বীর বাহাদুর সিংহের ঘনিষ্ঠ বন্ধু ছিলেন হরিদ্বার পান্ডে। কাজের প্রতি নিজের সততা বজায় রাখার দরুণ নিজের একটি পাকা বাড়িও বানানি তিনি।

প্রবল বৃষ্টিতে ভেঙ্গে পড়ে বাড়ি
এই ৮৮ বছর বয়সেও তাঁর কাছে প্রায় আড়াই বিঘা জমি এবং একটি টালি বাড়ি শুধুমাত্র রয়েছে। রবিবার রাতের প্রবল বৃষ্টিতে তাঁর সেই বাড়ি ধসে যায়। সমস্ত ঘরই ভেঙ্গে গিয়েছে। শুধুমাত্র একটি বারান্দা অবশিষ্ট রয়েছে। নীতি আদর্শের উপর ভরসা রেখে আজ তিনি সমাজের এক সাধারণ মানুষ হয়েই রয়েছে গেছেন।

এই ঘটনার পরবর্তীতে উত্তরপ্রদেশ কংগ্রেস কমিটির সাধারণ সম্পাদক বিশ্বজিৎ সিং তাঁর সাথে দেখা করতে গিয়েছিলেন। প্রাক্তন বিধায়ক হরিদ্বার পান্ডেকে তিনি সবরকম সাহায্যের আশ্বাসও দিয়েছেন। তবে বিধায়ক হরিদ্বার পান্ডে জানিয়েছেন, ‘যেটুকু জমি আছে, তা দিয়েই কাজ চালিয়ে নিতে পারব। বাড়িটা ভেঙ্গে যাওয়ায় একটু অসুবিধা হবে। তবে মেরামত করে নিতে হবে। বারান্দা দিয়ে ঠাণ্ডা হওয়া আসছে বলে, অল্প ঠাণ্ডাও অনুভূত হচ্ছে। তবে দেখি কি করা যায়’।

Back to top button