টাইমলাইনভারত

এসে গেল করোনা চিকিৎসার রামবাণ পদ্ধতি, সাফল্য মিলছে ১২ ঘন্টার মধ্যেই

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ করোনা ভাইরাস (covid-19) নির্মূলের লক্ষ্যে লড়াই চলছে গোটা বিশ্বজুড়ে। প্রতিদিনই নতুন নতুন গবেষণার মাধ্যমে এই ভাইরাসের সঠিক ওষুধ তৈরির চেষ্টা জারী রয়েছে। তবে এরই মধ্যে করোনার বিরুদ্ধে সফলভাবে কার্যকরী মনোক্লোনাল অ্যান্টিবডি থেরাপির (monoclonal antibody therapy) চিকিৎসা ভারতেও শুরু হয়ে গিয়েছে।

দিল্লীর স্যার গঙ্গারাম হাসপাতালে ইতিমধ্যেই দুই করোনা রোগীর উপর এই পদ্ধতির প্রয়োগ করা হয়েছে। দেখা গিয়েছে, এই থেরাপি প্রয়োগের ১২ ঘণ্টার মধ্যেই রোগমুক্ত হয়েছেন ওই দুই ব্যক্তি। এমনকি এই থেরাপি ব্যবহার করে বর্তমানে দুই রোগীকেই সুস্থ করে তাঁদের বাড়ি পাঠানো হয়েছে।

হাসপাতাল সূত্রে খবর, মনোক্লোনাল অ্যান্টিবডি থেরাপি প্রয়োগ করে ৩৬ বছর বয়সী এক স্বাস্থ্যকর্মী এবং ৮০ বছর বয়সের একজন বৃদ্ধের চিকিৎসা করা হয়েছে এই হাসপাতালে। যেখানে অসুস্থ স্বাস্থ্যকর্মী জ্বর, কাশি, লিউকোপেনিয়া সহ একাধিক রোগে আক্রান্ত ছিলেন। অন্যদিকে ৮০ বছর বয়সী বৃদ্ধ ডায়াবেটিস এবং হাইপারটেনসনে আক্রান্ত ছিলেন। তবে বর্তমানে তাঁরা দুজনেই সুস্থ ছিলেন।

আমেরিকার বায়োটেকনোলজি কোম্পানি রিজেনারেশন ফার্মাসিউটিক্যালস সর্বপ্রথম করোনা চিকিৎসার জন্য এই থেরাপি প্রস্তুত করে। ওষুধের নাম রিজেন-কভ (REGN-COV2)। ক্যাসিরিভিমাব, ইমডেভিমাব- এই দুরকম অ্যান্টিবডি নির্দিষ্ট অনুপাতে মিশিয়ে এই ককটেল তৈরি করা হয়েছে। যা দিল্লীর স্যার গঙ্গারাম হাসপাতালের রোগীদের উপর প্রয়োগের ১২ ঘণ্টার মধ্যেই সাফল্য মিলেছে।

এবিষয়ে এক চিকিৎসক জানিয়েছেন, যদি সঠিক সময়ে মনোক্লোনাল অ্যান্টিবডি থেরাপি প্রয়োগ করা যায় রোগীদের উপর, তাহলে চিকিৎসা ব্যবস্থায় দ্রুত বদল ঘটানো সম্ভব হবে। আশঙ্কাজনক রোগীদের দ্রুত চিকিৎসা করা সম্ভব হবে। যার ফলে অন্য সংক্রমণের মাত্রাও কমবে।

Related Articles

Back to top button