টাইমলাইনভারত

ভুলে কখনও ঠাকুরঘরে করবেন না এইসকল কাজ, জীবনে নামবে দুর্যোগের ছায়া

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ ধর্মপ্রাণ বাঙালির মতে ঠাকুরঘরেই (thakur ghar) দেবতার বাস। মানুষ তাই নিজের মনের মত করে সাজিয়ে তোলে ঠাকুরঘর। কিন্তু মনের মত করে সাজিয়ে তুলতে গিয়ে আমরা কোন ভুল করে ফেলি নাতো? এমন কোন ভুল যার কুপ্রাভ জীবনে নেমে আসতে পারে। চলুন জেনে নেওয়া যাক এমনই কিছু বিশেষ নিয়ম যা পালন করলে আপনি সর্বদাই ভগবানের কৃপাধন্য হতে পারবেন।

ভগবানের উদ্দেশ্যে আমরা সর্বদাই আমাদের সবটা দিতে চাই। তাই সবার আগে খেয়াল রাখতে হবে ভগবানের উদ্দেশ্যে দেওয়া ভোগে কোন ত্রুটি আছে কিনা। সব সময় নজর রাখতে হবে যাতে, শুধুমাত্র আতপ চাল দিয়েই ভাগবানের ভোগ তৈরি করা হয়।

ঠাকুরঘরে কখনই কোন অপরিস্কার ছবি এবং পুরনো ক্যালেন্ডার রাখা উচিত নয়।

ঠাকুরঘর যেন সর্বদাই সুমধুর গন্ধে ভরপুর থাকে। তাই কোন হালকা মিষ্টি যুক্ত ধূপ/ ফুল ব্যবহার করুন।

ঠাকুরঘরে যখন পুজোয় বসবেন তখন খেয়াল রাখবেন, কোনভাবেই সিংহাসনের ঠিক মুখোমুখি ভাবে বসা যাবে না। বরং হামলা বাম বা ডান দিকে চেপে বসে তবেই পুজো করুন।

ঠাকুরঘরে ঠাকুরকে সর্বদাই সিংহাসনের উপরে বসাবেন।

অনেক সময়ই এমন হয়, সময়ের অভাবে বেশ কিছু দিনের প্রসাদ একসাথে কিনে এনে সেটি ঠাকুরঘরে রেখে দিতে হয়। কিন্তু এমনটা করা উচিত নয়। দিনের দিন যেই প্রসাদটি আপনি দিচ্ছেন সেটি ব্যাতীত বাকি অংশটুকু অন্যত্র রাখুন।

ঠাকুর পুজোর জন্য ব্যবহৃত আসন অন্যত্র ব্যবহার করবেন না।

প্রদীপ জ্বালানোর ক্ষেত্রে মাথায় রাখতে হবে যাতে পুজোর সম্পূর্ণ সময় পর্যন্ত প্রদীপের শিক্ষা উজ্জ্বল থাকে।

Related Articles

Back to top button