কারেন্ট নেই! চালানো গেল না নেবুলাইজার! তীব্র শ্বাসকষ্টে দক্ষিণ ২৪ পরগনার হাসপাতালে মৃত্যু শিশুর

বাংলাহান্ট ডেস্ক : রেমাল ঘূর্ণিঝড়ের তাণ্ডবের মধ্যেই ১ মাসের শিশু কন্যার অকাল মৃত্যু। দক্ষিণ ২৪ পরগনার (South 24 Pargana) সাগর ব্লক হাসপাতালের বিরুদ্ধে উঠেছে চিকিৎসায় গাফিলতির অভিযোগ। জানা গেছে, রেমাল যখন তান্ডব চালাচ্ছিল, তখন ওই শিশু কন্যার শ্বাসকষ্ট দেখা দেয়। শিশুটির পরিবারের লোকজন সোমবার তাকে নিয়ে যান হাসপাতালে।

মৃত শিশু কন্যাটি খানসাহেব আবাদ এলাকার বাসিন্দা ছিল। ১ মাস বয়সী তুলিকা মহতাকে সোমবার নিয়ে যাওয়া হয় সাগর ব্লক হাসপাতালে। সোমবার দুর্যোগের মধ্যেই শ্বাসকষ্ট শুরু হওয়ায় অভিভাবকরা তাকে নিয়ে যায় সাগর গ্রামীণ হাসপাতালে। মৃত শিশুর পরিবারের অভিযোগ, সেই সময় হাসপাতালে উপস্থিত ছিলেন না কোনো চিকিৎসক। পরে চিকিৎসক এলেও বিদ্যুৎ না থাকায় শিশুটিকে দেওয়া যায়নি নেবুলাইজার।

আরোও পড়ুন : লোনে বাইক কেনার জন্য দুর্দান্ত অফার দিচ্ছে SBI! কত টাকা করে দিতে হবে মাসিক কিস্তি?

তার জেরে ওই শিশুর অবস্থার অবনতি হয়। তারপরই মৃত্যু হয় শিশুটির। মৃত শিশুটির পরিবার অভিযোগ করেছে, প্রশাসন অনেক আগে থেকেই ঘূর্ণিঝড় নিয়ে সতর্ক করেছিল। সেই বিষয় মাথায় রেখে আগে থেকে হাসপাতালে জেনারেটরের ব্যবস্থা করে রাখা উচিত ছিল। শিশুটির পরিবার বলছে, জেনারেটরের ব্যবস্থা থাকলেও হাসপাতালে সেই সময় তা ব্যবহার করা হয়নি।

IMG 20240528 144637

মৃত তুলিকার পরিবারের অভিযোগ, শিশুটি মারা যাওয়ার পর জেনারেটর চালিয়ে অক্সিজেন দেওয়ার ব্যবস্থা করা হয় হাসপাতালে। স্থানীয় এলাকার বাসিন্দারা এর আগেও একাধিকবার অভিযোগ তুলেছিলেন সাগর গ্রামীণ হাসপাতালের পরিষেবা নিয়ে। ডায়মন্ডহারবার জেলা স্বাস্থ্য মুখ্য আধিকারিকের দাবি, ওই শিশুটিকে হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়েছিল মুমূর্ষ অবস্থায়। গোটা ঘটনার তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

Avatar
Soumita

আমি সৌমিতা। বিগত ৩ বছর ধরে কর্মরত ডিজিটাল সংবাদমাধ্যমে। রাজনীতি থেকে শুরু করে ভ্রমণ, ভাইরাল তথ্য থেকে শুরু করে বিনোদন, পাঠকের কাছে নির্ভুল খবর পৌঁছে দেওয়াই আমার একমাত্র লক্ষ্য।

সম্পর্কিত খবর