বাড়তে চলেছে ট্রেনের ভাড়া ! পেনশনের খরচ যোগাতে এবার বড় সিদ্ধান্তের পথে ভারতীয় রেল

বাংলাহান্ট ডেস্ক : পেনশন দিতে গিয়ে আর্থিক সমস্যার সৃষ্টি হচ্ছে ভারতীয় রেলে (Indian Railways)। জানা গিয়েছে, এই সমস্যার সমাধানে অর্থমন্ত্রকের কাছে সাহায্যর আবেদন করেছে রেল। একটি প্রতিবেদনে ভারতীয় রেল বলেছে তারা ২০২২-২৩ অর্থবছরের জন্য পেনশন দিতে সক্ষম। তবে ২০২৪ অর্থবছর থেকে প্রয়োজন হতে পারে সাহায্যের।

ভারতীয় রেল মনে করছে ২০২৪ অর্থবছরের পেনশন বাবদ তাদের খরচ হতে পারে ৬২০০০ কোটি টাকা। জানা যাচ্ছে পেনশন খাতে প্রতি বছর খরচ বৃদ্ধি পাচ্ছে ভারতীয় রেলের। পেনশন বাবদ প্রতি বছর ভারতীয় রেলের ৬৫০০০ থেকে ৭০০০০ কোটি টাকা খরচ হচ্ছে। এই পেনশন ভারতীয় রেল নিজস্ব তহবিল থেকে দিয়ে থাকে।

   

সাম্প্রতিক বছরগুলিতে পেনশন খাতে ভারতীয় রেলের খরচ বৃদ্ধি পেয়েছে অনেকটাই। ফলে, ভারতীয় রেলের ভাঁড়ারে টান পড়তে শুরু করেছে। এমনকি পেনশন তহবিলের জন্য ভারতীয় রেল ঋণ পেয়েছে বরাদ্দ তহবিল থেকেও। পেনশন সম্পর্কিত খরচ নিয়ন্ত্রণের জন্য ধারণা করা হচ্ছে ভারতীয় রেল দুটি পথ অনুসরণ করতে পারে।

আরোও পড়ুন : খুলে গেল ভাগ্য, এবার বাংলার বুকেই তৈরি হবে অ্যাডভান্স বন্দে ভারত! অর্ডার এল এতগুলি ট্রেনের …

একটি হল, ভোট অন অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে বাজেট থেকে নতুন আর্থিক সহায়তা লাভ, অন্যটি, রেলের ভাড়ার পরিবর্তন। রেলের ভাড়া ও মালবাহী চার্জ বৃদ্ধি করে রেল চাইছে আয় বৃদ্ধি করতে। কিন্তু ভারতীয় রেলের আর্থিক চাপের সৃষ্টির কারণ কী? COVID-19 মহামারীর সময় আর্থিকভাবে বেশ বেগ পেতে হয় ভারতীয় রেলকে।

indian railways train main 1500x785

সেই সময় এক টাকা উপার্জনের জন্য ভারতীয় রেলকে খরচ করতে হত ৯৯ পয়সা। এখন এক টাকা রোজগারের জন্য ভারতীয় রেলকে ৯৮ পয়সা খরচ করতে হয়। স্বাভাবিক ভাবেই আয়-ব্যয়ের মধ্যে পার্থক্য খুবই কম। তাই বিকল্প ভাবে যদি আয় বাড়ানো না যায় তাহলে ভারতীয় রেলের আর্থিক চাপ আরো বৃদ্ধি পাবে।

Avatar
Soumita

আমি সৌমিতা। বিগত ৩ বছর ধরে কর্মরত ডিজিটাল সংবাদমাধ্যমে। রাজনীতি থেকে শুরু করে ভ্রমণ, ভাইরাল তথ্য থেকে শুরু করে বিনোদন, পাঠকের কাছে নির্ভুল খবর পৌঁছে দেওয়াই আমার একমাত্র লক্ষ্য।

সম্পর্কিত খবর