পশ্চিমী ঝঞ্ঝা, পুবালি হাওয়ার জোর সংঘাত! আজ কোন কোন জেলায় বৃষ্টি হবে? আবহাওয়ার খবর

বাংলা হান্ট ডেস্ক: রোদ-বৃষ্টির খেলায় মেতেছে রাজ্যের আবহাওয়া। নিয়মিত ভোলবদল। কখনও উঁকি দিচ্ছে রোদ। কখনও আবার ঘন কালো মেঘে ঢাকছে আকাশ। আর তারপরই শুরু বৃষ্টি (Rain Update)। বৃহস্পতিবারও অধিকাংশ জেলায় মেঘলা ছিল আকাশ। ঝড়-বৃষ্টিও (Rainfall) চলছে উত্তরবঙ্গে। ভিজেছে দক্ষিণবঙ্গও। আলিপুর আবহাওয়া দফতর (Alipore Weather Office) সূত্রে খবর, আজও রাজ্যের বেশ কিছু জায়গায় বৃষ্টি।

   

আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, আজ বৃষ্টি হলেও আবহাওয়ার মেজাজে বদল আসবে। শুক্রবার থেকেই বৃষ্টি কমবে। বেলা গড়াতেই থেকে ফের উঠবে রোদ। আজ দক্ষিণবঙ্গের দুই ২৪ পরগনা, পূ্র্ব মেদিনীপুর, মুর্শিদাবাদ এবং নদিয়াতে হালকা বৃষ্টি হতে পারে। বাকি জেলায় শুষ্ক থাকবে আবহাওয়া।

আগামীকাল শনিবার কেবলমাত্র দক্ষিণবঙ্গের দুই ২৪ পরগনা এবং বীরভূম, মুর্শিদাবাদে বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে। ঝোড়ো হাওয়া বইতে পারে। ওদিকে বৃষ্টি কমতেই বাড়বে তাপমাত্রা। চলতি সপ্তাহেই দক্ষিণবঙ্গের তাপমাত্রা ৬-১০ ডিগ্রি পর্যন্ত বাড়তে পারে। তবে দক্ষিণ ২৪ পরগনায় বহাল থাকবে বৃষ্টি। জারি থাকবে সতর্কবার্তা।

আবহাওয়া দপ্তর জানিয়েছে, পশ্চিমী ঝঞ্ঝার সঙ্গে পুবালি হাওয়ার সংঘাতেই জেরেই এই অকাল বর্ষণ। গতকাল সকালের দিকে কলকাতা-সহ বিভিন্ন জেলায় কুয়াশা ছিল। হঠাৎ এই বৃষ্টির জেরে ব্যাপক কমেছে তাপমাত্রা। গতকাল কলকাতার সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ২১.১ ডিগ্রি। যা স্বাভাবিকের থেকে ১৩ ডিগ্রি কম। আবহাওয়া দপ্তর জানিয়েছে, গত ৫৪ বছরে এই নিয়ে দ্বিতীয়বার মার্চ মাসে এসে এতটা তাপমাত্রার পতন হয়েছে।

আরও পড়ুন: ‘রাইফেল নিয়ে বর্ডারে দাঁড় করিয়ে দেওয়ার অবস্থা’, ভরা এজলাসে ক্ষোভে ফুঁসে উঠলেন প্রধান বিচারপতি

weather 19
উত্তরবঙ্গের আবহাওয়া: দক্ষিণবঙ্গে দুর্যোগ কমার সম্ভাবনা থাকলেও উত্তরবঙ্গে বৃষ্টিপাত বজায় থাকবে। সপ্তাহজুড়েই। শনিবার পর্যন্ত উত্তরবঙ্গে অধিক বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। নিম্নচাপ অক্ষরেখা উত্তরবঙ্গের ওপর দিয়ে যাবে। যার কারণে বঙ্গোপসাগর থেকে জলীয় বাষ্প চলে যাবে। শনিবার কোচবিহার, জলপাইগুড়ি এবং আলিপুরদুয়ারে মাঝারি থেকে ভারী বর্ষণ হতে পারে। এছাড়া বাকি জেলায় হালকা বৃষ্টির সম্ভাবনা।

Sharmi Dhar
Sharmi Dhar

শর্মি ধর, বাংলা হান্ট এর রাজনৈতিক কনটেন্ট রাইটার। উত্তরবঙ্গ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে সাংবাদিকতায় স্নাতকোত্তর। বিগত ৩ বছর ধরে সাংবাদিকতা পেশার সঙ্গে যুক্ত ।

সম্পর্কিত খবর