টাইমলাইনরাজনীতি

ভুয়ো বাসের তালিকা দিয়ে শ্রমিকদের সাথে প্রতারণা কেন? প্রিয়াঙ্কা গান্ধীকে আক্রমণ কংগ্রেস বিধায়ক অদিতি সিং-এর

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ উত্তর প্রদেশের পরিযায়ী শ্রমিকদের তাদের বাড়ি ফেরানোর জন্য কংগ্রেসের মহাসচিব প্রিয়াঙ্কা গান্ধী বঢড়ার (Priyanka Gandhi Vadra) প্রস্তাবে রাজনৈতিক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। এই বিষয়ে কংগ্রেস আর যোগী সরকারের (Yogi Government) মধ্যে একের পর এক অভিযোগ উঠে আসছে। শুধু তাই নয়, প্রিয়াঙ্কা গান্ধী লাগাতার ট্যুইট করে যোগী সরকারের উপর হামলা করেই চলেছেন।

আর এরই মধ্যে রায়বেরেলি কংগ্রেস বিধায়ক অদিতি সিং (Aditi Singh) নিজের দলকেই কাঠগড়ায় দাঁড় করিয়ে দিলেন। অদিতি সিং শুধু এই ঘটনাকে নিম্নমানের রাজনীতি আখ্যা দিয়েই চুপ থাকেন নি। উনি মহারাষ্ট্র, রাজস্থান আর পাঞ্জাব থেকে কেন বাসে করে শ্রমিকদের বাড়ি ফেরানো হচ্ছে না, সেটা নিয়েও প্রিয়াঙ্কা গান্ধীকে আক্রমণ করেছেন।

অদিতি সিং ট্যুইট করে লেখেন, ‘দুর্যোগের সময় এরকম নিম্নমানের রাজনীতির কোন দরকার আছে? এক হাজার বাসের তালিকা পাঠানো হয়েছে। সেখানে অর্ধেকের বেশি জল মেশানো। ২৯৭ টি ভাঙাচুরা বাস, ৯৮ টি অটো রিকশা আর অ্যাম্বুলেন্সের মতো গাড়ি। ৬৮ গাড়ির কোন কাগজই নেই। এটা কেমন রসিকতা? যদি বাস ছিলই তাহলে রাজস্থান, মহারাষ্ট্র আর পাঞ্জাব থেকে কেন ছাড়া হল না?”

এটাই প্রথম না যে, বিধায়ক অদিতি সিং দলের বিরুদ্ধে মুখ খুলেছেন। এর আগেও তিনি দলের বিরুদ্ধে মুখ খুলে শিরোনামে উঠে এসেছিলেন। বিধানসভার একটি অধিবেশনের সময় একদিকে প্রিয়াঙ্কা গান্ধী যখন লখনউতে প্রদর্শন করছিলেন, তখন দলের জারি করা হুইপ না মেনে অদিতি সিং বিধানসভায় উপস্থিত হয়েছিলেন। এরপর দলের তরফ থেকে ওনার বিরুদ্ধে একটি নোটিশও জারি করা হয়।

এর আগে কংগ্রেস মহাসচিব প্রিয়াঙ্কা গান্ধীর ব্যাক্তিগত সচিব, রাজ্য কংগ্রেসের সভাপতি তথা অন্যান্য কংগ্রেসের নেতাদের বিরুদ্ধে প্রতারণার মামলা দায়ের করা হয়েছে। সরকারের এক মুখপাত্র জানান, প্রিয়াঙ্কার ব্যাক্তিগত সচিব সন্দীপ সিং, প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অজয় কুমার লাল্লু তথা অন্য কংগ্রেস নেতাদের বিরুদ্ধে প্রতারণার অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। এই অভিযোগ হজরতগঞ্জ কোতওয়ালিতে দায়ের করা হয়েছে। পরিবহণ আধিকারিক আরপি ত্রিবেদির অভিযোগের পর এই মামলা দায়ের করা হয়েছে। এই মামলা ভারতীয় পিনাল কোড এর ধারা ৪২০, ৪৬৭ আর ৪৬৮ অনুযায়ী দায়ের করা হয়েছে।

Back to top button