ফোন ধরে হ্যালোর বদলে বলুন ‘বন্দে মাতরম”, দায়িত্ব পেতেই নির্দেশিকা জারি মহারাষ্ট্রের মন্ত্রীর

বাংলাহান্ট ডেস্ক : ফোন ধরে ‘হ্যালো’ আর বলা যাবে না। এবার থেকে বলতে হবে, ‘বন্দে মাতরম্’। রাজ্যের সরকারি কর্মী এবং আধিকারিকেরা এ বার থেকে কারও ফোন ধরলেই বলবেন ‘বন্দে মাতরম্’। রবিবার এমনই নির্দেশ দিলেন মহারাষ্ট্রের (Maharashtra) সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রী সুধীর মুঙ্গানতিওয়ার (Sudhir Mungantiwar)। তিনি আরও জানান, শীঘ্রই এই বিষয়ে একটি নির্দেশিকাও জারি করা হবে রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে।

   

রবিবারই সুধীরকে সংস্কৃতি বিষয়ক দফতরের দায়িত্ব দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী একনাথ শিন্ডে। তার পরই এমন নির্দেশ দিলেন মন্ত্রী। তিনি বলেন, ‘হ্যালো একটি ইংরেজি শব্দ। ইংরেজি শব্দ আমাদের পরিত্যাগ করা উচিত। বন্দে মাতরম্ কোনও শব্দ নয়। এটি একটি অনুভুতি যা প্রত্যেক ভারতীয়ের কাছে গুরুত্বপূর্ণ। আমরা স্বাধীনতার ৭৫ বছর উদ্‌যাপন করছি। তাই আমি চাই, সরকারি কর্মী ও আধিকারিকেরা ফোন ধরে এখন থেকে হ্যালোর পরিবর্তে বলবেন ‘বন্দে মাতরম্’।’’

এনসিপিকে ছেড়ে বিজেপির সঙ্গে জোট করে মুম্বইয়ের কুর্সি দখলের ৪০ দিন পরে গত মঙ্গলবার মন্ত্রিসভা সম্প্রসারণ করেছেন শিবসেনার বিদ্রোহী নেতা এবং মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী শিন্ডে। ওই দিন ১৮ জন বিধায়ক মন্ত্রী পদে শপথ নেন। আরও এক দফা মন্ত্রিসভা সম্প্রসারণ বাকি ছিল। সেই কাজ রবিবার সম্পূর্ণ হয়ে গেল। উপমুখ্যমন্ত্রী দেবেন্দ্র ফ়ডণবীসের হাতে স্বরাষ্ট্র এবং অর্থ দফতরের দায়িত্ব গিয়েছে। বিজেপি বিধায়ক রাধাকৃষ্ণ পাটিলের হাতে গিয়েছে রাজস্ব দফতর। চন্দ্রকান্ত পাটিল পেয়েছেন উচ্চশিক্ষা দফতর। তবে মন্ত্রীমশাইয়ের এই রকম নির্দেশের পর এখনও পর্যন্ত বিরোধীদের পক্ষ থেকে কোনও পতিক্রিয়া আসে নি।

সম্পর্কিত খবর