টাইমলাইনবিনোদন

দেহরক্ষীর বালাই নেই, সাধারণ মানুষের মতো লাইনে দাঁড়িয়ে স্বর্ণ মন্দিরে পুজো দিলেন আল্লু অর্জুন

বাংলাহান্ট ডেস্ক: বলিউড এবং দক্ষিণী ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি (South Film Industry), ভারতীয় চলচ্চিত্র জগতেরই অংশ দুই ইন্ডাস্ট্রি। অথচ তাদের মধ‍্যে আকাশ পাতাল তফাৎ। বলিউডের বিরুদ্ধে একাধিক বার অভিযোগ উঠেছে অভিনেতা অভিনেত্রীদের অভদ্র ব‍্যবহার, অহংকারী মনোভাবের জন‍্য। অন‍্যদিকে দক্ষিণী ইন্ডাস্ট্রির তারকারা বারংবার তাঁদের নম্র ব‍্যবহার দিয়ে মন জয় করে এসেছেন সবার। ইন্ডাস্ট্রির প্রথম সারির তারকা হয়েও তাঁরা থাকেন মাটির কাছাকাছি।

দক্ষিণী ইন্ডাস্ট্রির প্রথম সারির একজন তারকা হলেন আল্লু অর্জুন (Allu Arjun)। ‘পুষ্পা’র পর থেকে তাঁর জনপ্রিয়তা আরো বেড়ে গিয়েছে। অভিনয় তো বটেই, নিজের নানান কর্মকাণ্ড দিয়েও অনুরাগীদের মনে পাকাপাকি ভাবে ছাপ ফেলেছেন তিনি। এবার আরো একবার চর্চায় উঠে এল আল্লুর নাম।


তারকা মানেই যেন তাঁরা আকাশের চাঁদ। আমজনতার ধরাছোঁয়ার বাইরে। নিরাপত্তার বেষ্টনী পার করে একটা মাছি গলারও জো নেই, সেখানে ভক্তরা তো কোন ছাড়। এখানেই আলাদা আল্লু অর্জুন। একেবারে জনসাধারণের মাঝে এসে দাঁড়ালেন তিনি, তাও আবার কোনো দেহরক্ষী ছাড়াই।

সম্প্রতি পঞ্জাবের অমৃতসরের স্বর্ণ মন্দিরে দেখা মেলে আল্লুর। স্ত্রী স্নেহা রেড্ডির জন্মদিন উপলক্ষে স্বর্ণ মন্দিরে পুজো দিতে গিয়েছিলেন তিনি। আর পাঁচজন সাধারণ দর্শনার্থীদের মতো লাইনে দাঁড়িয়ে মন্দিরে ঢোকার অপেক্ষা করতে দেখা যায় তাঁকে। সঙ্গে ছিলেন স্ত্রী স্নেহা এবং দুই সন্তান। অন‍্য তারকাদের মতো মন্দিরে ঢুকতে ভিআইপি প্রবেশপথের দিকে পা বাড়াননি তিনি।


আরো আশ্চর্যের বিষয় হল, এদিন আল্লু অর্জুনের সঙ্গে কোনো দেহরক্ষীকেও দেখা যায়নি। নিজের তারকা সত্ত্বা ঝেড়ে ফেলে একজন সাধারণ মানুষ হিসাবে স্বর্ণ মন্দির দর্শন করতে এসেছিলেন অভিনেতা। ‘পুষ্পারাজ’ এর এহেন নম্র স্বভাব দেখেই মুগ্ধ নেটনাগরিকরা।

এর আগেও পানমশলা ও মদের বিজ্ঞাপনের লোভনীয় প্রস্তাব ফিরিয়ে নেটিজেনদের মন জয় করে নিয়েছিলেন আল্লু অর্জুন। নিজের লাভের জন‍্য অনুরাগীদের বিপদের মুখে ঠেলে দিতে পারবেন না, এমনটাই জানিয়েছিলেন তিনি। এবার আল্লুর মাটির কাছাকাছি থাকার স্বভাবটাকে উদাহরণ হিসাবে তুলে ধরে বলি তারকাদের শিক্ষা নেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন অনেকে।

Related Articles