খাস কলকাতায় নর্দমা থেকে উদ্ধার সদ্যোজাত কন্যার দেহ! মর্মান্তিক কাণ্ড বাগুইআটিতে

   

বাংলা হান্ট ডেস্ক: এ যেন কেঁচো খুঁড়তে গিয়ে কেউটে! নর্দমা (Drain) থেকে উদ্ধার শিশুকন্যার দেহ। বাগুইআটিতে (Baguiati) এক বৃদ্ধার বাড়ির জল আটকে যাচ্ছিল। সেই কারণে তিনি নিজেই ওই নালা পরিষ্কার করতে গিয়েছিলেন। কিন্তু সেই নালা পরিষ্কার করতে গিয়ে যে এই দৃশ্য দেখবেন তা তিনি নিজে কখনও কল্পনাও করতে পারেননি। বৃহস্পতিবার সকালে তিনি দেখেন, ওই নর্দমায় একটি শিশুর (Child) হাত-পা ভাসছে।

ঘটনাটি ঘটেছে, বাগুইআটি থানার বিধাননগর (Bidhannagar) পুর নিগমের ১৮ নম্বর ওয়ার্ডের উদয়ন পল্লি এলাকায়। দুই বাড়ির মাঝের নালা থেকে দেখা যায় ওই দেহ। শিশুর হাত-পা দেখতে পেয়ে তড়িঘড়ি স্থানীয় ক্লাবে খবর দেন ওই বৃদ্ধা। খবর দেওয়া হয় পুলিশে। এরপর পুলিশ এসে ওই শিশুর দেহ উদ্ধার করে। জানা গিয়েছে, ওই শিশুটি কন্যা। এরপর দেহটি ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে।

তবে কে বা কারা এই ঘটনায় জড়িত তা জানা যায়নি। ওই এলাকার সিসিটিভি ফুটেজ (CCTV Footage) খতিয়ে দেখা হচ্ছে। এলাকার কাউন্সিলর ইন্দ্রনাথ বাগুই বলেন, ‘আমরা সকাল সাতটা নাগাদ খবর পেয়ে পুলিশকে গোটা বিষয়টা জানাই। খবর পেয়ে বাগুইআটি থানার পুলিশ‌ আধিকারিকেরা ঘটনাস্থলে আসে। তারা সদ্যোজাতের দেহ উদ্ধার করে নিয়ে গিয়েছে।’

কোনও সদ্যোজাতের দেহ তার মা-বাবা ছাড়া কেউ ফেলতে যাবেন না। আর নিখোঁজ থাকলেও পুলিশে অভিযোগ দায়ের হবে। তবে সাম্প্রতিককালে এই ঘটনায় এমন কোনও রিপোর্ট সেখানে হয়নি। যার ফলে মনে করা হচ্ছে, মেয়ে সন্তান হওয়ায় কেউ বা কারা ওই শিশুকে নালায় ফেলে দিয়েছে। ঘটনার পূর্ণাঙ্গ তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

Avatar
Monojit

সম্পর্কিত খবর