fbpx
টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গ

বিনপুরে বন্যপ্রাণীর পায়ের ছাপ , আনা হল বাঘ ধরার খাঁচা

 

ঝাড়গ্রাম :- বিনপুর থানার কাঁকো গ্রামপঞ্চায়েতের মোহনপুর গ্রামের মালাবতী জঙ্গলের পাশের একটি সর্ষে খেতে অজ্ঞাত এক প্রাণীর পায়ের ছাপ দেখতে পান গ্রামবাসীরা। তাঁরা অনুমান করেন, পায়ের ছাপটি বাঘের। তার পরেই মোহনপুরের পার্শ্ববর্তী গ্রামগুলিতে খবর ছড়িয়ে পড়ে, জঙ্গল থেকে বাঘ এসে ঢুকে পড়েছে এলাকায়।

বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে মোহনপুরের সর্ষে খেতের আশপাশে স্থানীয় মানুষের ভিড় বাড়তে থাকে। ঘটনার খবর পেয়ে এসে পৌঁছয় বন দফতরের কর্মীরা। বিনপুর থানার পুলিশও ঘটনাস্থলে পৌঁছয়। ঝাড়গ্রামের ডিএফও বাসবরাজ  হলেইচি গিয়ে পৌঁছন সেখানে। অজ্ঞাত প্রাণীর পায়ের ছাপটিকে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করেন বন দফতরের কর্মীরা। এক আগে ২০১৮  সালে বাঘের আতঙ্ক ছড়িয়েছিল ঝাড়গ্রাম জেলার লালগড়ে।

ইতিমধ্যেই সুন্দরবন থেকে বিনপুরে চার সদস্যের বিশেষজ্ঞদল বিনপুরে এসে পৌঁছেছেন। তাঁরা নানা ভাবে বাঘের পায়ের পায়ের ছাপ পরীক্ষা করে দেখছেন।তবে খাঁচা দু’টি কোথায় পাতা হবে তা এখনও স্থির করা হয়নি। বনদফতরের কর্মীরা ব্যাঘ্র বিশেষজ্ঞদের ইতিমধ্যেই মালাবতী জঙ্গলে নিয়ে গেছেন। মালাবতী জঙ্গল লাগোয়া মোহনপুর ও লক্ষ্মণপুর গ্রামেও যান বিশেষজ্ঞরা। জানা গেছে তাঁরা বাঘের ব্যাপারটি সম্বন্ধে নিশ্চিত না হওয়া পর্যন্ত গ্রামে থাকতে পারেন।

বন দফতরের পরামর্শ যাতে এই সময় কেউ বাড়ির বাইরে না বেরোন। যাঁরা পশুপালন করেন তাঁরা যাতে পশুদের নিয়ে বনের আশপাশে চরাতে না যান সেই পরামর্শও দেওয়া হয়েছে। গবাদি পশুদের সামলে রাখার ব্যাপারে বিশেষ ভাবে পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

 

Close
Close