‘এটা সীমা ছাড়িয়ে যাচ্ছে…’, রাজ্যকে তুমুল ভর্ৎসনা করে ভরা এজলাসে যা বলল হাই কোর্ট

   

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ একাধিক ইস্যুতে বারংবার হাই কোর্টের ভর্ৎসনার মুখে রাজ্য সরকার (West Bengal Government)। গতকাল অভিষেকের BJP নেতাদের ‘বাড়ি ঘেরাও’ মামলার শুনানি ছিল। বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারীর করা মামলায় তৃণমূল সেকেন্ড ইন কমান্ডের কর্মসূচির ওপর স্থগিতাদেশ দিয়েছে কলকাতা হাই কোর্ট (Calcutta High Court)। পাশাপাশি এই নিয়ে যথেষ্ট বিরক্তি প্রকাশ করেন বিচারপতির বেঞ্চ।

সোমবার ‘বাড়ি ঘেরাও’ মামলার শুনানিতে কলকাতা হাই কোর্টের প্রধান বিচারপতি (Chief Justice of Calcutta High Court) টিএস শিবজ্ঞনামের ডিভিশন বেঞ্চের মন্তব্য, ‘এই ধরনের কর্মসূচি কোনও ভাবেই মান্যতা দেওয়া যায় না। এটা করা যাবে না। এই ক্ষেত্রে অভিযোগকারী কে, তা ভুলে যান। এটা সীমা ছাড়িয়ে যাচ্ছে। এটার অননুমোদন কোনও ভাবেই দেওয়া যায় না।’

হাইকোর্টের কড়া পর্যবেক্ষণ, ‘আসল কথা হল রাজ্য সরকার জনসাধারণের কথা ভাবছে না। সেই বিষয়ে উদ্বিগ্ন নয়। অফিসযাত্রীদের নিয়ে চিন্তিত নয়।’ এখানেই শেষ নয়, ২১ জুলাইয়ের শহিদ সমাবেশ নিয়েও মন্তব্য করেন বিচারপতি।

একজোটে রাজ্য সরকার ও পুলিশ প্রশাসনের ভূমিকায় অসন্তোষ প্রকাশ করে প্রধান বিচারপতি বলেন, ‘কেউ যদি বলে যে সে বিকেল ৩টের সময় কোনও জায়গায় বোমা ছুড়তে যাবে, তাহলে রাজ্য পুলিশ কি তা অগ্রাহ্য করবে, কোনও পদক্ষেপ করা হবে না? কালকে যদি কেউ বলে যে সে পুরো হাইকোর্ট চত্বর ঘেরাও করবে, রাজ্য সরকার কি বিষয়টির দিকে নজর দেবে না?’

বিচারপতির সাফ কথা, ‘অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের মন্তব্যের প্রেক্ষিতে আপনারা কী পদক্ষেপ করেছেন?‌’ অভিষেকের মন্তব্য প্রসঙ্গে তিনি আরও বলেন, ‘দায়িত্বশীল সাংবিধানিক পদে থাকা ব্যক্তিদের কাছ থেকে এমন ধরনের মন্তব্য অনভিপ্রেত।’

high court

যদিও এই কর্মসূচী প্রসঙ্গে আদালতে রাজ্যের অ্যাডভোকেট জেনারেল বলেন, এটি একটি রাজনৈতিক কর্মসূচি থেকে এক নেতার দেওয়া বিবৃতি। রাজ্য সরকার এখনও এই কর্মসূচীতে অনুমোদন দেয়নি। এর প্রেক্ষিতে প্রধান বিচারপতি বলেন, ‘এমন দায়িত্বশীল পদে থাকা একজন ব্যক্তি এই ধরনের বিবৃতি দিতে অনুমান করাই যায় যে কর্মসূচি নিয়ে ইতিমধ্যেই পরিকল্পনা হয়ে গিয়েছে।’

বিচারপতি টিএস শিবজ্ঞনাম বলেন, ‘আপনি আপনার সমস্ত রাজনৈতিক কর্মসূচি পালন করুন। কিন্তু দয়া করে জনসাধারণকে এর থেকে রেহাই দিন। দয়া করে কর্মজীবীদের কাজ করতে দিন। অফিসারদের অফিসে উপস্থিত হতে দিন।’

Sharmi Dhar
Sharmi Dhar

শর্মি ধর, বাংলা হান্ট এর রাজনৈতিক কনটেন্ট রাইটার। উত্তরবঙ্গ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে সাংবাদিকতায় স্নাতকোত্তর। বিগত ৩ বছর ধরে সাংবাদিকতা পেশার সঙ্গে যুক্ত ।

সম্পর্কিত খবর