ঘুরে গেল খেলা! পার্থ ‘ঘনিষ্ঠ’ কাউন্সিলর বাপ্পাদিত্যর বাড়ি থেকে যা পেল CBI, চরম ফাঁসলো প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রী

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ গত বৃহস্পতিবার রাজ্যজুড়ে একাধিক তৃণমূল নেতার বাড়িতে হানা দেয় সিবিআই (CBI)। মুর্শিদাবাদের ডোমকলের তৃণমূল বিধায়ক জাফিকুল ইসলাম (TMC MLA Jafikul Islam), পার্থ চট্টোপাধ্যায় (Partha Chatterjee) ঘনিষ্ঠ তৃণমূল কাউন্সিলর (TMC Councillor) বাপ্পাদিত্য দাশগুপ্ত (Bappaditya Dasgupta) , তেঘরিয়ায় তৃণমূল কাউন্সিলর দেবরাজ চক্রবর্তীর বাড়িতেও (Debraj Chakraborty) তল্লাশি চালান সিবিআই আধিকারিকরা।

   

শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতি মামলাতেই ময়দানে নামে সিবিআই। পার্থ চট্টোপাধ্যায় ঘনিষ্ঠ তৃণমূল কাউন্সিলর বাপ্পাদিত্য দাশগুপ্তর বাড়িতে বহু ঘণ্টা তল্লাশি চালায় কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা। কলকাতার ১০১ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলরের পাশাপাশি কলকাতা পুরসভায় তৃণমূলের মুখ্য সচেতক বাপ্পাদিত্য।

লক্ষীবারে তল্লাশির পর সিবিআই এর দাবি ছিল, দেবরাজ চক্রবর্তী এবং বিধায়ক জাফিকুল ইসলামের বাড়ি থেকে শিক্ষক নিয়োগ সংক্রান্ত নথিপত্র মিলেছে। যা নিয়ে শোরগোল। এরই মধ্যে এবার সিবিআই এর দাবি, বাপ্পাদিত্য দাশগুপ্তর বাড়ি থেকে তল্লাশিতে মিলেছে এসএসসি ও প্রাথমিকের নিয়োগ সংক্রান্ত নথি।

আরও পড়ুন: হঠাৎ অসুস্থ মদন মিত্র! তড়িঘড়ি ভর্তি করা হল SSKM হাসপাতালে, কি হয়েছে বিধায়কের?

সিবিআই সূত্রে খবর, পার্থ ঘনিষ্ঠ কাউন্সিলরের বাড়ি থেকে অ্যাডমিট কার্ড, রেকমেন্ডেশন লেটার ও বায়োডেটা উদ্ধার হয়েছে। মিলেছে ১০০ পাতার নথি। উদ্ধার হয়েছে রাজ্যের একাধিক পদে নিয়োগ সংক্রান্ত নথিও। নিয়োগ সংক্রান্ত নথি কেন এক কাউন্সিলরের বাড়িতে? তদন্ত চালাচ্ছে সিবিআই।

cbi scam

ওদিকে কাউন্সিলর বাপ্পাদিত্য দাশগুপ্তর দাবি, “কিছু ডকুমেন্টস ও নথি, আইটি রিটার্ন নিয়ে গিয়েছে সিবিআই। যদি আমাকে ডাকা হয়ে নিশ্চয়ই যাব।” সিবিআই সূত্রে দাবি, বৃহস্পতিবার একাধিক তৃণমূল নেতা, বিধায়কের বাড়ির থেকেই উদ্ধার হয়েছে শিক্ষক নিয়োগ সংক্রান্ত নথিপত্র। এই ঘটনায় পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের বিপদ আরও কিছুটাবাড়তে পারে বলে দাবি ওয়াকিবহল মহলের।