টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গ

‘আমি বেশিদিন থাকব না বলে ফাঁকি দিচ্ছ না তো” মুখ্যমন্ত্রীর কথা শুনে হকচকিয়ে গেলেন পুলিশ কর্তা

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ সোমবার উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা, হুগলি এবং হাওড়ার প্রশাসনিক কর্তাদের সাথে বৈঠকে বসেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী (Mamata Banerjee)। বাংলায় নিম্নচাপের পরিস্থিতি, ১০০ দিনের কাজ আর করোনা ভাইরাসের ইস্যু সমেত বিভিন্ন ইস্যু নিয়ে খোঁজখবর নেন তিনি। এই বৈঠকে বারুইপুরের পুলিশ সুপার রশিদ মুনিরকে মজার ছলে প্রশ্ন করে মমতা ব্যানার্জী বলেন, ‘প্রোমোশন অনেক দেরি আছে, টাইম কম দিচ্ছ নাকি?”

মমতা ব্যানার্জী/ Mamata Banerjee

মুখ্যমন্ত্রীর জবাবে বারুইপুরের পুলিশ সুপার রশিদ মুনির বলেন, ‘না ম্যাম পুরো সময়ই দিচ্ছি।” এরপর মমতা ব্যানার্জী মুনিরকে বলেন, ‘প্রোমোশন হয়ে যাবে এখুনি, তবে আমি বেশিদিন থাকব না ভেবে টাইম কম দিচ্ছ না তো?” মুখ্যমন্ত্রীর প্রশ্নবানে হকচকিয়ে যান পুলিশ সুপার। এরপর তিনি উত্তর দিয়ে বলেন, ‘না ম্যাম আপনিই থাকবেন।” রশিদ মুনির উত্তরে হেসে ফেলেন মুখ্যমন্ত্রী।

আরেকদিনে আজ নবান্নের ভার্চুয়াল সভা থেকে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘আমাদের সরকার অনেক বেশি স্বচ্ছ হয়ে কাজ করে।” উনি কেন্দ্রকে বিঁধে বলেন, রাজ্য সরকার কত মাশ কিনেছে তা অনেকে জানতে চাইছেন। কিন্তু প্রধানমন্ত্রী কেয়ার্স ফান্ডে কত টাকা জমা পড়েছে সেই নিয়ে কারোর কোন মাথা ব্যাথা নেই। উল্লেখ্য, উনি একই কথায় কেন্দ্র সরকার এবং রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড়কে আক্রমণ করেন।

উল্লেখ্য, রাজ্যে করোনার কিট নিয়ে দুর্নীতি কথা সামনে আসার পর থেকেই মুখ্যমন্ত্রী এবং রাজ্যপালের সংঘাত চলছে। আর সেই প্রসঙ্গেই তিনি আজ রাজ্যের করোনা কিট নিয়ে দুর্নীতির কথা সাইডে সরিয়ে রেখে পিএম কেয়ার্স ফান্ডে কত টাকা জমা পড়েছে আর সেই টাকার কি হয়েছে সেটা জানতে চাইলেন তিনি।

Related Articles

Back to top button