ভাত হোক বা রুটি, আলু আর বেগুনের মতো মামুলি সবজি দিয়েই হয়ে যাবে এই লোভনীয় রেসিপি

বাংলাহান্ট ডেস্ক: বেগুন (Brinjal) খেতে ভালবাসেন? তাহলে মূলত ভাজা বা শাকসবজির সঙ্গেই খেয়ে থাকবেন নিশ্চয়ই। তরকারিতে বেগুন খুব একটা দেখা যায় না। আর একঘেয়ে সরষে পোস্ত দিয়ে বেগুন আর কাঁহাতক খেতে ভাল লাগে? তাই রইল এই নতুন রেসিপি যেখানে না লাগবে সরষে আর না পোস্ত। শুধু আলু আর বেগুন (Alu Beguner Curry) থাকলেই তৈরি হয়ে যাবে এই রান্না।

   

আলু আর বেগুন মোটামুটি সবার রান্নাঘরেই পাওয়া যায়। কিন্তু এই দুটো সবজি দিয়ে কী এমন রাঁধা যায় যা কিনা সকলের ভাল লাগবে সেটাই ভেবে পাওয়া যায় না সবসময়। এই প্রতিবেদনে আপনাদের জন্য রইল শুধুমাত্র আলু আর বেগুনের একটি অসাধারণ রেসিপি যা বানানোও যতটা সহজ, তৈরিও হয়ে যায় তেমনি চটজলদি।

alu begun

উপকরণ:

১. আলু, বেগুন

২. পেঁয়াজ কুচি, আদা রসুন বাটা, চিরে রাখা লঙ্কা, টমেটো কুচি বা পিউরি

৩. গোটা জিরে, নুন, হলুদ, লঙ্কা গুঁড়ো, ধনে গুঁড়ো, গরম মশলা, সরষের তেল

প্রণালী:

১. প্রথমে আলু এবং বেগুন সরু সরু করে কেটে ভাল করে ধুয়ে নিন।

২. কড়াইতে তেল গরম করে জিরে ফোরণ দিন। এর মধ্যে দিয়ে দিন পেঁয়াজ কুচি এবং লঙ্কা।

frying onion

৩. হালকা ভাজা হলে এর মধ্যে দিয়ে দিন আদা রসুন বাটা। সবটা ভাল করে নেড়ে নিয়ে কেটে ধুয়ে রাখা আলুর টুকরো গুলো দিয়ে দিন।

begun

৪. মাঝারি আঁচে আলু গুলো ভেজে নিয়ে এর মধ্যে দিন কেটে রাখা বেগুন। ভাজা ভাজা হলে একে একে দিয়ে দিন ধনে গুঁড়ো, হলুদ, লঙ্কা গুঁড়ো, গরমা মশলা গুঁড়ো আর স্বাদ মতো নুন।

৫. সব সবজিতে মশলাটা ভাল মতো মাখানো হয়ে গেলে এক কাপ মতো জল দিয়ে দিন। আলু এবং বেগুন ভার মতো সেদ্ধ হওয়া পর্যন্ত ঢাকা দিয়ে রান্না করুন। তবে মাঝে মাঝে খুন্তি দিয়ে নাড়তে থাকবেন নয়তো কড়াইয়ের নীচে লেগে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

৬. জল শুকিয়ে এলে এর মধ্যে দিয়ে দিন টমেটো পিউরি। ভাল করে মশলাটা কষানোর পরে দিয়ে দিন আরো আধ কাপ জল। রান্নাটা মাখামাখাই হবে। তবে একটু ঝোল রাখতে হলে আরেকটু জল দিতে হবে।

৭. মিনিট কয়েক ঢাকা দিয়ে রান্না করলেই তৈরি আলু বেগুনের এই লোভনীয় রেসিপি। ধনে পাতা দিয়ে সাজিয়ে গরম গরম পরিবেশন করুন ভাত, রুটি বা পরোটা দিয়ে।

সম্পর্কিত খবর