পশ্চিমবঙ্গে এবার ইলিশ দুর্নীতি! লক্ষ লক্ষ টাকা নয়ছয়, মুখ্যমন্ত্রীর কাছে গেল চিঠি

   

বাংলাহান্ট ডেস্ক : খাদ্য রসিক বাঙালির কাছে বড়ই প্রিয় ইলিশ মাছ। বর্ষা এলেই বাঙালির মন ইলিশ ইলিশ করে নেচে ওঠে। কিন্তু এবার সেই ইলিশ মাছ নিয়েও উঠল দুর্নীতির অভিযোগ। দুর্নীতির অভিযোগ মৎস্য দপ্তরের বিরুদ্ধে। অভিযোগ বাজেয়াপ্ত করা খোকা ইলিশ নিয়ে দুর্নীতি করা হয়েছে নিলামে।

কিন্তু আসল ব্যাপারটা ঠিক কী? কয়েকদিন আগে প্রশাসনিক আধিকারিকদের কাছে খবর আসে বেআইনিভাবে কুড়ি সেন্টিমিটারেরও কম দৈর্ঘ্যের খোকা ইলিশ বিক্রি হচ্ছে ফ্রেজারগঞ্জের বাজারে। খবর পেয়ে প্রশাসনিক কর্তারা হানা দেন সেই বাজারে।

আরোও পড়ুন : লোকসভা ভোটে ফের প্রচারে নামছেন আব্বাস? দাদাকে নিয়ে বড় মন্তব্য করলেন নওশাদ

হানা দিয়ে মৎস্য দপ্তরের আধিকারিকরা বাজেয়াপ্ত করেন ২২৯ ক্রেট ইলিশ-সহ অন্যান্য সামুদ্রিক মাছ। এরপর সেই মাছগুলিকে নিলামে চড়ানো হয়।অভিযোগ সেই নিলামেই হয়েছে দুর্নীতি। এই ইলিশ মাছ নিয়ে দুর্নীতির অভিযোগ উঠেছে ডায়মন্ড হারবারের সহ মৎস্য অধিকর্তা (সামুদ্রিক) পিয়াল সর্দারের বিরুদ্ধে। 

images 79 2

ওয়েস্টবেঙ্গল ইউনাইটেড ফিশারম্যান ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশনের সদস্যরা বিষয়টি নিয়ে চিঠি লিখেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে। যদিও সমস্ত অভিযোগ খারিজ করে দিয়েছেন পিয়াল সর্দার। তিনি বলেছেন খোকা ইলিশ বিক্রি এভাবে বন্ধ করাতেই তার বিরুদ্ধে চক্রান্ত করা হচ্ছে।

Avatar
Soumita

আমি সৌমিতা। বিগত ৩ বছর ধরে কর্মরত ডিজিটাল সংবাদমাধ্যমে। রাজনীতি থেকে শুরু করে ভ্রমণ, ভাইরাল তথ্য থেকে শুরু করে বিনোদন, পাঠকের কাছে নির্ভুল খবর পৌঁছে দেওয়াই আমার একমাত্র লক্ষ্য।

সম্পর্কিত খবর