তিন মাসের সম্পর্কের যুগে ১৩ বছরের ‘ইশকওয়ালা লভ’! কীভাবে পরিচয় হয় অঙ্কুশ-ঐন্দ্রিলার?

   

বাংলাহান্ট ডেস্ক: সম্পর্ক এখন বড়ই ঠুনকো। সে রিল লাইফ হোক বা রিয়েল। বিয়ের আগে বা পরে ভালবাসার মেয়াদ এসে দাঁড়িয়েছে কয়েক মাস বা বড়জোড় কয়েক বছরে। তারকাদের বিচ্ছেদের খবর শোনা এখন জলভাত হয়ে গিয়েছে। সেখানে দাঁড়িয়ে অঙ্কুশ হাজরা (Ankush Hazra) এবং ঐন্দ্রিলা সেনের (Oindrila Sen) সম্পর্কটা যেন এক ঝলক খোলা হাওয়া। গুরু গম্ভীর বা অতি রোম্যান্টিক প্রেমের চাইতে দুষ্টুমিভরা খুনসুটিই তাঁদের সম্পর্কের ইউএসপি।

একসঙ্গে সুখে দুঃখে ১৩ টা বছর পার করে দিলেন অঙ্কুশ ঐন্দ্রিলা। দুজনের কেরিয়ারের শুরুর দিক থেকেই একে অপরের সঙ্গে রয়েছেন তাঁরা। টলিপাড়ার সবথেকে মিষ্টি কাপলদের মধ্যে অঙ্কুশ ঐন্দ্রিলার নাম থাকবেই। কিন্তু তাঁদের সম্পর্কের শুরুটা কীভাবে হয় তা জানেন?

ankush oindrila 2

এক সাক্ষাৎকারে অঙ্কুশ জানিয়েছিলেন, ঐন্দ্রিলার সঙ্গে তাঁর প্রথম দেখা হয় ২০১১ সালের ১২ ফেব্রুয়ারি। জায়গাটা ছিল একটা জিম। না, লভ অ্যাট ফার্স্ট সাইট ছিল না বিষয়টা। প্রথমে ভাল বন্ধুত্বই গড়ে উঠেছিল দুজনের মধ্যে। জিমের সব সদস্যদের নিয়েই একসঙ্গে যেতেন অঙ্কুশ ঐন্দ্রিলা। ধীরে ধীরে ঘনিষ্ঠতা বাড়তে বাড়তে কখন প্রেম হয়ে যায় তা তারা নিজেরাও বুঝতে পারেননি।

অঙ্কুশের থেকে সাত বছরের ছোট ঐন্দ্রিলা। কিন্তু এত বছর ধরে একসঙ্গে থাকার ফলে প্রেমিক প্রেমিকার থেকে বন্ধুই বেশি হয়ে উঠেছেন দুজনে। অঙ্কুশের জন্মদিন ১৪ ফেব্রুয়ারি নিজেদের সম্পর্কের জন্মদিনও পালন করেন তাঁরা। বেশ অনেক দিন ধরেই এক ছাদের তলায় থাকছেন অঙ্কুশ ঐন্দ্রিলা। নিজেদের সম্পর্কটা নিয়ে বেশ খোলামেলা থাকেন তাঁরা।

ankush oindrila

ঐন্দ্রিলা ছোটপর্দা থেকে বড়পর্দায় পা রেখেছেন অঙ্কুশের নায়িকা হয়ে। আগামীতেও একসঙ্গে কাজ করতে চলেছেন তাঁরা। বাকি শুধু রিয়েল লাইফ বিয়ে। এ বিষয়ে ঐন্দ্রিলা একবার জানিয়েছিলেন, তাঁর ডেস্টিনেশন ওয়েডিং এর প্ল্যান রয়েছে। অন্যদিকে অঙ্কুশের বক্তব্য, তাঁরা যখন একসঙ্গেই রয়েছেন তখন আর বিয়ে করার কী দরকার। যদিও শেষমেষ বিয়ের সিদ্ধান্ত তাঁরা কবে নেবেন তা এখনো ফাঁস করেননি এই জুটি।

Avatar
Niranjana Nag

সম্পর্কিত খবর